চিনা মিডিয়া কি অভিনন্দনের মুক্তির প্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ‘রক-স্টার’ আখ্যা দিয়েছে?

চিনা মিডিয়ার ভিডিওটি পুরনো এবং অভিনন্দনের মুক্তি পাওয়ার সঙ্গে তার কোনও সম্পর্ক নেই

রক্ষণশীল ওয়েবসাইট রাইটলগ ডট ইন ২০১৮ সালের একটি ভিডিও প্রকাশ করেছে, যার ক্যাপশন —“মোদী ভারতের সুপারস্টার । চিনা মিডিয়া তাঁর নেতৃত্বের প্রশংসা করছে” । ওয়েবসাইটটির দাবি, ভিডিওটি সাম্প্রতিক এবং উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমানের মুক্তি পাওয়ার সঙ্গে জড়িত ।

২০১৮ সালের এই ভিডিওটি ২৮০০ জন শেয়ার করেছে এবং সোশাল মিডিয়ায় এটি ভাইরাল হয়েছে ।

মোদীর কৃতিত্বের শীর্ষবিন্দুটি হল ভারতীয় বায়ুসেনার উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমানের মুক্তি লাভ, যাঁকে পাকিস্তানি সেনারা বন্দি করেছিল এবং পাকিস্তানের সঙ্গে কোনও দরকষাকষি না করেই যাঁকে নিঃশর্তে মুক্ত করে আনা গেছে । স্বভাবতই চিনা মিডিয়ায় মোদী সম্পর্কে নিম্নলিখিত প্রশংসাসূচক মন্তব্য ছড়িয়েছেঃ


সম্পূর্ণ বক্তব্যটি জানতে এখানে এবং তার আর্কাইভ বয়ান পড়তে এখানে ক্লিক করুন ।

ভাইরাল হওয়া ভিডিওটিতে সঞ্চালক অন্যতম আলোচককে প্রশ্ন করছেন—“আপনার কি মনে হয় মোদী একজন গোপন সুপারস্টার বলিউডের কোনও সিনেমার, যিনি চিনে ব্যাপক বক্স অফিস অর্থাৎ জনপ্রিয়তা পেয়েছেন?” উত্তরে আলোচক বলছেন, “আমার তো মনে হয়, মোদী কোনও গোপন সুপারস্টার নন, তিনি যথার্থই একজন সুপারস্টার । বহু বছরের মধ্যে, বস্তুত কয়েক দশকের মধ্যে ভারত এমন একজন শক্তিশালী এবং কার্যকরী নেতা পায়নি । একই সঙ্গে তিনি সংস্কারপন্থীও বটে এবং ব্যবসায়ী-শিল্পপতিদের প্রতি অনুকূল ।”

“পিএমও ইন্ডিয়াঃ রিপোর্ট কার্ড” নামে একটি ফেসবুক পেজও ওই একই ভাইরাল ভিডিওটি শেয়ার করেছে এবং একই রকম ভুল ক্যাপশন দিয়ে উইং কমান্ডার অভিনন্দনের মুক্তির বিষয়টিকে জুড়ে দিয়েছে ।

ক্যাপশনটি হলঃ চিনা মিডিয়া বলছে, ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী একজন রকস্টার । পাকিস্তানেও ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে । #অভিনন্দন ঘরে ফিরছে, #স্বাগত অভিনন্দন ।

পোস্টটি ১৮০০ জন শেয়ার করেছে, ৩৮ হাজার জন দেখেছে এবং এই লেখা লেখা পর্যন্ত ২৯০০টি প্রতিক্রিয়া পাওয়া গেছে ।

পোস্টটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন এবং তার আর্কাইভ বয়ান দেখতে এখানে

২০১৯ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি দ্য ইউথ নামে একটি রক্ষণশীল ওয়েবসাইট জানায় যে, ভিডিওটি পাকিস্তানেও ভাইরাল হয়েছে এবং এই লেখার সময় পর্যন্ত ১ লক্ষ জন সেটি শেয়ার করেছে ।

তথ্য যাচাই

বুম দেখেছে, ভিডিওটি এক বছর আগের, ২০১৮ সালের ২৮ মার্চের এবং মোটেই অভিনন্দনের মুক্তির সময়ের নয় ।

ভিডিও ক্লিপটি নেওয়া হয়েছে ইয়াং রুই-এর সঙ্গে কথোপকথন নামে একটি সংবাদ পরিক্রমা থেকে, যা চিনা সরকারের মালিকানাধীন সংবাদ চ্যানেল সিজিটিএন-এ দেখানো হয়েছিল । ২০১৮-র জুনে সাংহাই সহযোগিতা শীর্ষ বৈঠকে যোগ দিতে নরেন্দ্র মোদীর চিন সফরের প্রেক্ষিতে ওই চ্যানেল একটি আলোচনাচক্রের আয়োজন করে, যার নাম ছিলঃ চিন-ভারত সম্পর্ক কি ক্রমশ উষ্ণ হচ্ছে?

আরও পড়ুন এখানে



ভিডিওটির ৫ মিনিট ১৮ সেকেন্ডের কাউন্টারে অধ্যাপক ওয়াং ডংকে অভিমত দিতে শোনা যাচ্ছে যে, তাঁর মতে মোদী একজন সুপারস্টার, বিশেষত তাঁর সংস্কারপন্থী ও ব্যবসায়বান্ধব ভাবমূর্তির কারণে ।

পাকিস্তানেও ভাইরাল?

বুম মোদী সুপারস্টার, চিনা মিডিয়ায় মোদী, মোদী সুপারস্টার পাকিস্তান—এই সব শব্দ সাজিয়ে ফেসবুকে সন্ধান চালিয়ে দেখেছে, ওই ভিডিও শেয়ারকারীরা সকলেই ভারতীয় ।

যেহেতু পাকিস্তানে ভিডিওটির ভাইরাল হওয়ার দাবির সপক্ষে কোনও প্রমাণ মেলেনি এবং সেই মর্মে কোনও রিপোর্টও প্রকাশিত হয়নি, তাই এই দাবিটিকে ভুয়ো বলেই গণ্য করতে হবে ।

Claim Review :   Video of Chinese Media Saying, “PM Modi Is A Rockstar,” Goes Viral In Pakistan As Wing Commander Abhinandan Is Released
Claimed By :  Website
Fact Check :  FALSE
Show Full Article
Next Story