'পাঞ্জাবে বদলের শুরু' দাবিতে ছড়ানো মদ্যপ পুলিশের ভিডিওটি ২০১৭ সালের

পাঞ্জাবে নবগঠিত আপ সরকার ও নতুন মুখ্যমন্ত্রী ভগবন্ত মানকে ব্যঙ্গ করে ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি শেয়ার করা হয়েছে।

পুলিশের পোশাক পরা এক মদ্যপ ব্যক্তির একটি পুরনো ভিডিও (Old Video) সোশাল মিডিয়ায় শেয়ার করা হয়েছে। ভিডিওটির সঙ্গে পাঞ্জাবে (Punjab) নবগঠিত আম আদমি পার্টির (AAP) সরকারকে কটাক্ষ করে ক্যাপশন দেওয়া হয়েছে।

বুম যাচাই করে দেখে যে, ভিডিওটি ২০১৭ সালের, এবং যে দাবিতে ভিডিওটি শেয়ার করা হয়েছে, তার সঙ্গে ভিডিওটির কোনও সম্পর্ক নেই।

আম আদমি পার্টির ভগবন্ত মান (Bhagwant Mann) ধুরি আসন থেকে জিতেছেন। ১৬ মার্চ তিনি পাঞ্জাবের নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নেন। মান তাঁর রাজনৈতিক জীবনের আগে একজন কৌতুকশিল্পী ছিলেন। পাঞ্জাবের ১১৭টি বিধানসভা আসনের মধ্যে ৯২ টি আপের ঝুলিতে।

মান ইতিপূর্বে জনসমক্ষে প্রতিজ্ঞা করেছিলেন যে, তিনি আর কখনও মদ্যপান করবেন না।

৫৭ সেকেন্ড দীর্ঘ ভিডিওটিতে খাকি পাগড়ি মাথায় এবং পুলিশের পোশাক পরা এক ব্যক্তিকে নিজের পায়ে দাঁড়ানোর চেষ্টা করতে দেখা যাচ্ছে। যিনি ভিডিওটি রেকর্ড করেছেন, তিনি ওই মদ্যপ ব্যক্তির পাশে পড়ে থাকা খালি একটি মদের বোতল দেখিয়েছেন। ভিডিওটির সঙ্গে পাঞ্জাবি গান বাজতে শোনা যাচ্ছে।

মানের প্রতি কটাক্ষ করে ভিডিওটি টুইটারে শেয়ার করা হয়েছে। ক্যাপশনে লেখা হয়েছে, "পেগওয়ন্ত মান যখন আপনার মুখ্যমন্ত্রী।"

আর এক জন টুইটারে একই ভিডিও শেয়ার করে সঙ্গে ক্যাপশন দিয়েছেন, 'পাঞ্জাবে ভগবন্ত মানের আপ শাসন শুরু হয়েছে।'

টুইটটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

ভিডিওটি ফেসবুকে বিপুল ভাবে শেয়ার করা হয়েছে। সঙ্গে হিন্দিতে লেখা যে ক্যাপশন দেওয়া হয়েছে, তাতে আপ এবং মানকে কটাক্ষ করা হয়েছে। ভিডিওটি সাম্প্রতিক বলেও ইঙ্গিত করা হয়েছে।

ফেসবুক পোস্টের সঙ্গে হিন্দিতে লেখা যে ক্যাপশন দেওয়া হয়েছে তার অনুবাদ, "পাঞ্জাবে পরিবর্তন আসতে শুরু করেছে।"


(হিন্দিতে ক্যাপশন: पंजाब में बदलाव आना शुरू हो गया.)

এরকম আরও ফেসবুক পোস্ট দেখতে এখানে এবং এখানে ক্লিক করুন।

আরও পড়ুন: বিবেক অগ্নিহোত্রীর ভুয়ো দাবি কাশ্মীর গণহত্যা রোড আইল্যান্ডে স্বীকৃত

তথ্য যাচাই

ভিডিওটির মূল ফ্রেম বুম রিভার্স ইমেজ সার্চ করে এবং দেখতে পায় যে, ভিডিওটি ২০১৭ সালে ইউটিউবে আপলোড করা হয়েছিল।

আমরা দেখতে পাই যে, এই একই ভিডিও ২০১৭ সালের ১৩ এপ্রিল ইউটিউবে আপলোড করা হয়। সঙ্গে শিরোনাম দেওয়া হয়, "উড়তা পাঞ্জাব, পাঞ্জাবের মদ্যপ পুলিশ আধিকারিক।"

আসল ভিডিওটিতে কোনও গান ছিল না। ব্যাকাগ্রাউন্ডে বিভিন্ন মানুষকে কথা বলতে শোনা গিয়েছিল।

এই একই ভিডিও ২০১৭ সালের অগস্ট মাসে টুইটারেও শেয়ার করা হয়েছিল।

বুম ভিডিওটির উৎস খুঁজে পায়নি, কিন্তু এটা যে কমপক্ষে পাঁচ বছরের পুরানো, তা নিশ্চিত ভাবে জেনেছে।

আরও পড়ুন: ভিডিওর মিথ্যে দাবি পাঞ্জাবে আপ জেতার পর খালিস্তানি স্লোগান

Updated On: 2022-03-21T18:10:22+05:30
Claim :   ভিডিওর দাবি আপ পাঞ্জাবে ক্ষমতায় আসার পর মদ্যপ পুলিশকর্মী
Claimed By :  Facebook Posts & Twitter Users
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.