বাবরি মসজিদ ভাঙার সঙ্গে সম্পাদনা করে জোড়া হল বার্লিনে পতাকা তোলার ছবি

বুম দেখে 'জয় শ্রী রাম' লেখা গেরুয়া পতাকাটি সম্পাদনা করে রাইখস্ট্যাগের উপর পতাকা তোলার ছবির সঙ্গে জুড়ে সম্পাদনা করা হয়।

দ্বিতীয় বিশ্ব যুদ্ধের সময় মিত্র শক্তি সোভিয়েত রেড আর্মির হাতে অক্ষ শক্তি জার্মানির সংসদ ভবন রাইখস্ট্যাগের (Reichstag) উপর পতাকা উত্তোলনের বিতর্কিত ছবি ফোটোশপ করে জুড়ে বিভ্রান্তিকর দাবি সহ সোশাল মিডিয়ায় বাবরি মসজিদ (Babri Mosque Demolition) ধ্বংসের বর্ষপূতি উপলক্ষ্যে ছবিটি ফেসবুকে শেয়ার করা হচ্ছে।

১৯৯২ সালের ৬ ডিসেম্বর উত্তরপ্রদেশের অযোধ্যায় কর সেবকরা বাবরি মসজিদের ধাঁচা ভাঙে। ঘটনার পরে দেশ জুড়ে সাম্প্রদায়িক হিংসা ছড়ায়। ২০১৯ সালে বাবরি মসজিদের ওই বিতর্কিত জমি সংক্রান্ত বিবাদের নিষ্পত্তি করে রায় দেয় সুপ্রিম কোর্ট। এখানেই তৈরি হচ্ছে অযোধ্যার রাম মন্দির। অযোধ্যার এসএসপি শৈলেশ পান্ডে জানান, অযোধ্যায় পূণ্যার্থীর ভিড় বৃদ্ধিতে আঁটোসাটো করা হচ্ছে নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

সোশাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া ছবিটিতে দেখা যায়, বাবরি মসজিদের প্রাকারে উঠে 'জয় শ্রীরাম' লেখা গৈরিক পতাকা টাঙানো হচ্ছে। ছবিটি পোস্ট করে ক্যাপশন লেখা হয়েছে, "আজ ৬ই ডিসেম্বর ৷ ১৯৯২ সালের এই দিনেই হিন্দু-অপমানের প্রতীক বাবরি ধাঁচা ধ্বংসের মাধ্যমে হিন্দু জাতির কলঙ্ক মুক্তি হয় ৷ শৌর্য দিবসের অনেক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন! এখন কাশি মথুরা র অপেক্ষায়"।

পোস্টটি দেখতে ক্লিক করুন এখানে

পোস্টটি দেখতে ক্লিক করুন এখানে

আরও পড়ুন: ধর্ষণের সাজা ফাঁসি দাবিতে রাষ্ট্রপতির ভাষণ বিভ্রান্তিকর দাবিতে ভাইরাল

তথ্য যাচাই

প্রথম ছবি

বুম ভাইরাল ছবির ডান দিকে পতাকা উত্তোলনের অংশ কেটে নিয়ে রিভার্স সার্চ করে ২০১৩ সালের ৫ এপ্রিল ন্যাশনাল জিওগ্রাফিকের এক প্রতিবেদনে ছবিটিকে খুঁজে পায়। বলা বাহুল্য ওই ছবিতে গেরুয়া পতাকাটি নেই।

ছবিটির ক্যাপশন লেখা হয়, "রাশিয়ান সৈন্যরা শহরে ঝড়ের বেগে আক্রমণের পর বার্লিনের রাইখস্ট্যাগের ধ্বংসাবশেষের উপর টেবিলের কাপড় দিয়ে তৈরি একটি পতাকা উত্তোলন করছে। এই ধরণের সামরিক অভিযানের পরে অবিস্ফোরিত বোমা এখনও জার্মান ভূমিকে দূষিত করে।"

ছবির সৌজন্য হিসাবে গেট্টি ইমেজকে কৃতিত্ব দেওয়া এই সূত্র ধরে বুম গেট্টি ইমেজেস ওয়েবসাইটেও ছবিটিকে খুঁজে পায়। ছবিটির শিরোনামে লেখা হয়, "সোভিয়েত ইউনিয়নের লাল পতাকা রাইখস্ট্যাগের উপর ১৯৪৫ দ্বিতীয় বিশ্ব যুদ্ধের সময়।"

ছবির ক্যাপশনে লেখা হয়, "দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে রাইখস্ট্যাগ পতনের পর সোভিয়েত লাল বাহিনীর সেনারা লাল পতাকা উত্তোলন করছে। জার্মানি, বার্লিন।" ছবির কৃতিত্ব দেওয়া হয় রাশিয়ার সংবাদ সংস্থা তাস ও ইয়েভগেনি খালদেই (Yevgeny Khaldei)-কে।

সূত্র: গেটি ইমেজেস

পতাকা উত্তোলনের ঘটনার বেশ কিছু বছর পরে ছবিটি মঞ্চস্থ করে তোলা বলে জানান সোভিয়েত ফোটোগ্রাফার ইয়েভগেনি খালদে। জর্মান সেনারা রাইখস্ট্যাগ থেকে ওড়ানো আসল পতাকাটি গুলি করে নষ্ট করে দিলে তিনটে টেবিলের কভার সেলাই করে তৈরি করা হয়। এই ছবি কারচুপি করা বলেও বিতর্ক রয়েছে। মূল ছবিতে ফ্ল্যাগপোল ধরে থাকা ব্যক্তি সোভিয়েত সেনা আব্দুলকাহাকিম ইসমাইলভ হাত ঘড়ি মুঝে যায় সম্পাদনা করা ধোঁয়া মেশানো ছবিতে।

নিচে ইয়েভগেনি খালদের ছবি ও ভুয়ো ছবির তুলনা করা হল।

দ্বিতীয় ছবি

আর বাবরি মসজিদের মূল ছবিটি দেখা যাবে ২০১৭ সালের ৬ ডিসেম্বর প্রকাশিত দ্য হিন্দুর এক প্রতিবেদনে। দ্য হিন্দুর প্রতিবেদন অনুযায়ী বাবরি মসজিদ ধ্বংসের আসল ছবিটি তোলার কৃতিত্ব দেওয়া হয় ইন্ডিয়াপিক্স নেটওয়ার্কের সঞ্জয় শর্মাকে।

সূত্র: দ্য হিন্দু

আরও পড়ুন: "দ্য ওমিক্রন ভেরিয়েন্ট" নামে ভাইরাল সিনেমার পোস্টারটি সম্পাদিত

Updated On: 2021-12-06T18:44:22+05:30
Claim :   ছবি দেখায় অযোধ্যায় বাবরি মসজিদ ধ্বংসের সময় গেরুয়া পতাকা উত্তোলন
Claimed By :  Social Media Users
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.