এই ভিডিওটি ভ্লাদিমির পুতিনের মেয়ের কোভিড-১৯ টিকা নেওয়ার দৃশ্য নয়

বুম দেখে ভাইরাল ভিডিওটি নাতালিয়া'র। ওই ডাক্তারি পড়ুয়া বুর্দেনকো মিলিটারি হাসপাতালে টিকার দ্বিতীয় দফার ট্রায়ালে অংশ নেন।

রুশ কোভিড-১৯ টিকার ক্লিনিক্যাল পরীক্ষায় অংশ নেওয়া এক স্বেচ্ছাসেবিকার ভিডিও এই বলে ভাইরাল হয়েছে যে, ইনি রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের কন্যা।

ভিডিওতে নাতালিয়া নামের এক রুশ ডাক্তারি ছাত্রীকে টিকা নেওয়ার পর একটি হাসপাতালের লাউঞ্জে বসে থাকতে দেখা যাচ্ছে। সেই সঙ্গে এই ঘটনার সঙ্গে সম্পর্কহীন একটি ছবিও প্রচারিত হচ্ছে, যাতে একটি মেয়েকে পুতিনকে সম্বর্ধিত করতে দেখা যাচ্ছে, তাকেও পুতিনের কন্যা বলে ভুলভাবে সনাক্ত করা হয়েছে।
রাশিয়া কোভিড-১৯-এর প্রতিষেধক টিকা (স্পুটনিক-৫) আবিষ্কার করে ফেলেছে, এই খবরটির প্রেক্ষিতেই এই ভিডিও ও ছবি ভাইরাল হয়ে চলেছে।
অ্যাসোসিয়েটেড প্রেস
আরও জানিয়েছে যে প্রথম দফায় যাদের উপর এই টিকা পরীক্ষামূলকভাবে প্রয়োগ করা হয়, তাদের মধ্যে পুতিনের কন্যাও রয়েছেন। মস্কোর গামালেয়া জাতীয় গবেষণা কেন্দ্র ও রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের সমন্বয়ে এই প্রতিষেধক টিকা স্পুটনিক-৫–এর পরীক্ষামূলক প্রয়োগ অনুমোদিত হয়।
রিপোর্ট অনুযায়ী, রাশিয়া দু ধরনের প্রতিষেধক টিকা আবিষ্কার করেছে, যেগুলি স্বেচ্ছাসেবকদের উপর আলাদা আলাদা ভাবে পরীক্ষা করা হয়েছে দুটি আলাদা ক্লিনিকে—একটি সেচেনভ ফার্স্ট মস্কো স্টেট মেডিক্যাল ইউনিভার্সিটি, অন্যটি বুর্দেনকো মিলিটারি হাসপাতাল।
ভিডিওটি যে ক্যাপশন সহ ঘুরছে, তা হলো: "স্বেচ্ছাসেবক হতে প্রস্তুত পুতিনের কন্যাকে সম্মান করো।"
টুইটটির আর্কাইভ করা আছে এখানে
একই ধরনের অন্য একটি টুইট আর্কাইভ করা আছে এখানে
ভিডিওটির একটি স্ক্রিনশট এবং সম্পর্কহীন অন্য একটি ছবি জুড়েও তা এই উপলক্ষে ভাইরাল করা হয়েছে, যার ক্যাপশনটি আবার বাংলা বিবরণীতে: "আজ নবেল করোনা ভাইরাস প্রতিরোধক ভ্যাকসিন আবিষ্কারের পর তা প্রথম প্রয়োগ করা হলো রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন কন্যা মারিয়া পুতিনের দেহে।"
এই পোস্টটির আর্কাইভ বয়ান এখানে দেখতে পারেন।
তথ্য যাচাই
বুম ইউটিউবে কোভিড-১৯ টিকা পরীক্ষার স্বেচ্ছাসেবক এই মূল শব্দগুলি বসিয়ে তল্লাশি চালিয়ে দেখেছে বেশ কয়েকটি ভিডিও, যেগুলি খুঁটিয়ে দেখলে স্পষ্ট, স্বেচ্ছাসেবিকাটি পুতিনের কন্যা নন। ২০ জুলাই দ্য ফার্স্ট সেভাস্তোপল-এর
আপলোড
করা একটি ভিডিওয় তা স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে। ভিডিওটির শিরোনাম: পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষ। স্বেচ্ছাসেবকদের এবার ছেড়ে দেওয়া হচ্ছে।
ভিডিওটির বিবরণীতে বলা হয়েছে: "পরীক্ষা সাঙ্গ হয়েছে l প্রথম দফার স্বেচ্ছাসেবকদের বুর্দেনকো সামরিক হাসপাতাল থেকে ছেড়েও দেওয়া হয়েছে। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রক গামালেয়া জাতীয় গবেষণা কেন্দ্রের সঙ্গে যৌথভাবে এই পরীক্ষা সাফল্যের সঙ্গে চালিয়েছে। যাদের শরীরে টিকা দেওয়া হয়, তাদের দেহে করোনাভাইরাসের অ্যান্টিবডি মিলেছে। প্রতিষেধকে যে সব ওষুধ ব্যবহার করা হয়েছে, মানবদেহে সেগুলির প্রতিক্রিয়া খারাপ কিছু নয়। অন্তত চিকিৎসক সের্গেই বরিসেভিচ ক্রাসনায়া জাভেজদা সংবাদপত্রের সাংবাদিকদের সেই মর্মেই আশ্বস্ত করলেন।"

২৬ জুন ইউটিউবে জাভেজদা নিউজ-এর আপলোড করা অন্য একটি ভিডিও-ও আমরা খুঁজে পাই। ওই ভিডিওটিতে ১ মিনিট ৪ সেকেন্ড থেকে স্বেচ্ছাসেবিকর ওপর প্রতিষেধক টিকা পরীক্ষার দৃশ্য দেখা যাচ্ছে।

এক রুশ ভাষা বিশেষজ্ঞের মতে স্বেচ্ছাসেবিকার নাম বুলেটিনে নাতালিয়া বলে জানানো হয়েছে। "পরীক্ষায় যে ৬ জন মহিলা স্বেচ্ছাসেবী হতে রাজি হন, নাতালিয়া তাঁদের অন্যতম। তিনি ভবিষ্যতে সেনা-ডাক্তার হওয়ার জন্য প্রস্তুত হচ্ছেন, তাই তিনিই সবার আগে পরীক্ষাগারে প্রবেশ করেন, যেন হবু পুরুষ ডাক্তারদের অনুপ্রেরণা দিতেই।" নাতালিয়াকে উদ্ধৃত করে বুলেটিন জানাচ্ছে: "আমি একেবারেই নার্ভাস হইনি এবং মানসিকভাবে সম্পূর্ণ প্রস্তুতও ছিলাম। আমি যখন কেবিনের অভ্যন্তরে প্রবেশ করি, তখন এটা জেনেই যাই যে মানবজাতির ভবিষ্যত নিরাপত্তার জন্যই এটা করা দরকার। নিজেদের শরীরে আমরা এই টিকা প্রয়োগ করছি এটাই জনসাধারণকে বোঝাতে যে এটা সম্পূর্ণ নিরাপদ এবং ভবিষ্যতে অনেক মানুষকে এই টিকা রক্ষা করবে।"
রেন টিভি নামে অন্য একটি সংবাদ-মাধ্যমও নাতালিয়াকে উদ্ধৃত করে ২৬ জুন তাঁর পরীক্ষার অভিজ্ঞতার কথা তুলে ধরেl ভিডিওটির শিরোনামের ইংরাজি অনুবাদ হবে—ভয় ও যন্ত্রণার বাইরে। এ বিষয়ে নাতালিয়ার অভিজ্ঞতার কথা আরও জানতে এখানে দেখুন।
সংবাদে প্রকাশ প্রাক্তন স্ত্রী লুডমিলা আলেকজান্দ্রোভনা ও পুতিনের দুই মেয়ে—মারিয়া ভরোন্তসোভা এবং ক্যাটেরিনা তিখোনোভা। এই দুই মেয়ের মধ্যে কোনজন কোভিড-১৯ প্রতিষেধক টিকা নিয়েছেন তা জানা যায়নি।
এক অল্পবয়সী মেয়ের সঙ্গে পুতিন
২০১৭ সালের ১২ জুন স্পুটনিক-এ প্রকাশিত একটি
ছবি
ভাইরাল হয়েছে, যেখানে একটি মেয়ে পুতিনকে সম্বর্ধিত করছে। ছবিটির ক্যাপশনে লেখা: পড়াশোনায় কৃতিত্বের জন্য এবং জরুরি পরিস্থিতিতে সাহস প্রদর্শনের জন্য ১০ জন রুশ তরুণকে বেছে নিয়ে তাদের হাতে পাশপোর্ট তুলে দেওয়ার এক অনুষ্ঠানে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এবং আস্ত্রাখানের পলিনা মগিলিয়ান। ছবিটি আলামি-তেও রয়েছে।

Updated On: 2020-08-14T20:25:21+05:30
Claim Review :   ভিডিও দেখায় রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের মেয়ে কোভিড-১৯ টিকা নিচ্ছে
Claimed By :  Facebook Posts & Twitter Users
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story