বিশ্ব ব্যাঙ্ক থেকে ভারত সরকার গত ৭ বছরে ঋণ নেয়নি, জিইয়ে উঠল ভুয়ো দাবি

বুম দেখে ভারত সরকার ২০১৬ অর্থবর্ষ থেকে ২০২১ অর্থবর্ষ পর্যন্ত গত কয়েক বছরে একাধিক খাতে বিশ্ব ব্যাঙ্ক থেকে ঋণ নিয়েছে।

Claim

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বাধীন ভারত সরকার গত সাত বছরে বিশ্ব ব্যাঙ্কের কাছ থেকে কোনও ঋণ নেয়নি এই বিভ্রান্তিকর দাবি সহ সোশাল মিডিয়ায় একটি গ্রাফিক পোস্ট শেয়ার করা হচ্ছে। ফেসবুকে শেয়ার করা গ্রাফিক্স পোস্টটিতে লেখা, "ইতিহাসে এই প্রথম কোনও প্রধানমন্ত্রী বিশ্ব ব্যাঙ্কের কাছে দেশকে সম্পূর্ণ ঋণমুক্ত করে এবং গত সাত বছরে কোনও ঋণ না নিয়েই দেশ চালাচ্ছেন। মোদী হ্যাঁয় তো মুমকিন হ্যাঁয়।"

Fact

বুম দেখে ২০১৭ সালে অর্থ মন্ত্রকের তরফ থেকে টুইট করে বলা হয়, ভারত বিশ্ব ব্যাঙ্কের সাথে অসম নাগরিক কেন্দ্রীক পরিষেবা বিতরণ প্রকল্পের জন্য ৩৯.২ মিলিয়ন ডলারের চুক্তি স্বাক্ষর করেছিল। এছাড়াও বিভিন্ন সময়ে ভারত উল্লেখযোগ্য প্রকল্প যেমন প্রধানমন্ত্রী গ্রামীণ সড়ক যোজনা, ভূগর্ভস্থ জল ব্যবস্থাপনার উন্নয়ন, গঙ্গা অববাহিকা প্রকল্প ইত্যাদির জন্য বিশ্ব ব্যাঙ্কের কাছ থেকে ঋণ নিয়েছে। ২০২০ সালে ভারতের অর্থ মন্ত্রকের তরফ থেকে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয় করোনা অতিমারির মোকাবিলার জন্য তিন দফায় মোট ২.৫ বিলিয়ন ডলার ঋণ প্রদান করে বিশ্ব ব্যাঙ্ক। বিশ্ব ব্যাঙ্কের ওয়েবসাইট থেকে জানা যায়, ৩১ মে ২০২১ পর্যন্ত ঋণগ্রহীতার বাধ্যবাধকতা হিসেবে ভারতের কাছ থেকে আইবিআরডি ও আইডিএ ঋণের ১৭.৮৩৮ বিলিয়ন ও ২২.৩ বিলিয়ন ডলার পাওনা রয়েছে। জুন মাসে এরকমই দাবি সহ গ্রাফিক পোস্ট ভাইরাল হলে বুম সেটির তথ্য যাচাই করেছিল।

To Read Full Story, click here
Updated On: 2021-08-03T19:30:51+05:30
Claim Review :   প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বাধীন ভারত সরকার গত সাত বছরে বিশ্ব ব্যাঙ্কের কাছ থেকে কোনও ঋণ নেয়নি
Claimed By :  Facebook Post
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story