অক্টোপাস কমান্ডোদের মক-ড্রিল ভিডিও জঙ্গি হামলা হিসেবে ভাইরাল

ভিডিও তে দেখা যাচ্ছে ওয়ারাঙ্গালে তেলেঙ্গানা পুলিশের স্পেশাল কমান্ডোরা মক-ড্রিল করছেন। ভাইরাল মেসেজগুলি দাবি করছে যে, ভিডিওটি অন্ধ্রপ্রদেশে জঙ্গি আক্রমণের

তেলেঙ্গানা পুলিশের স্পেশাল কমান্ডোদের মক ড্রিলের একটি ভিডিও মেসেজসহ হোয়াটসঅ্যাপ ও অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যাচ্ছে। মেসেজে দাবি করা হচ্ছে যে, ওটি অন্ধ্রপ্রদেশে জঙ্গি হানার ভিডিও।

ভিডিওটি এই ক্যাপশান দিয়ে শেয়ার করা হচ্ছে যে, ‘তিরুমালা বাইপাসের কাছে ৪ জন জঙ্গি, যাদের মধ্যে একজন ঘটনাস্থলেই নিহত হয়েছে। গ্রেপ্তার করা হয়েছে বাকি তিনজনকে’।

ভিডিওটি একই ক্যাপশান দিয়ে টুইটারেও শেয়ার করা হয়েছিল: ‘তিরুমালা বাইপাসের কাছে ৪ জন মুসলিম জিহাদি জঙ্গিকে দেখা গেছে, যাদের একজন ঘটনাস্থলেই নিহত হয়েছে। বাকি ৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।’ মেসেজটি হিন্দিতেও অনুবাদ করা হয়। এবং তা দ্রুত ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ে।

তথ্য যাচাই

বুম ভিডিওটি বিশ্লেষণ করে। এবং তাতে দেখা যায়, এই মাসের গোড়ার দিকে তেলেঙ্গানার ওয়ারাঙ্গাল জেলায় অক্টোপাস দলটির একটি মক ড্রিল পরিচালনা করার খবর প্রকাশিত হয়। ওয়ারাঙ্গাল জেলায় পাবলিক প্লেসে অনুষ্ঠিত ওই মক ড্রিলটি ছিল তেলেঙ্গানা পুলিশের একটি এলিট কমান্ডো ফোর্সের। সেই কমান্ডোরা এসেছিল অর্গানাইজেশন ফর কাউন্টার–টেররিস্ট অপারেশনস সংক্ষেপে অক্টোপাস থেকে। তাদের কমান্ডোদের ভাল প্রশিক্ষণ দিতেই দলটি পাবলিক প্লেসে মক ড্রিল করান হচ্ছিল। আর ওয়ারাঙ্গালে অনুষ্ঠিত সেই রকম ড্রিলেরই একটি ছবি ভাইরাল হয়ে যায়। স্থানীয় একটি চ্যানেল NTV Telugu তাদের সংবাদ প্রতিবেদনে একই ছবি আপলোড করে, ভাইরাল ভিডিও তে যে ফুটেজ ৩.১০ মিনিটে দেখানো হয়।

আর একটি স্থানীয় সংবাদ চ্যানেল Tv5 তেলুগুতে ওই মক ড্রিলের একটি বিস্তারিত ওয়েব স্টোরি চালায়। যাতে ওই ভিডিও থেকে নেওয়া একই ছবি ব্যবহার করা হয়। এবং সেই ছবিতে ইংরেজি ক্যাপশন ছিল, “অক্টোপাস মক ড্রিল”।

বুম ওয়ারাঙ্গাল পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করে। তারা জানায়, কোনও জঙ্গি আক্রমণের ঘটনাই ঘটে নি। এবং ওটা যে জেলায় মক ড্রিলেরই ভিডিও ছিল, সে সম্পর্কেও তারা সুনিশ্চিত করে বুমকে। ওয়ারাঙ্গল পুলিশ কমিশনারেটের পিআরও মোহন কৃষ্ণ বুমকে বিষয়টি সম্পর্কে এই ব্যাখ্যাই দেন যে, ১১ জানুয়ারি ওয়ারাঙ্গালে অক্টোপাস দলটির ২ মক ড্রিল হয়েছিল।“ওয়ারাঙ্গালের ভদ্রকালি মন্দির ও এমজিএম হসপিটাল জাংশনের কাছে এই দুটি জায়গায় দলটি মক ড্রিল পরিচালনা করে।”

তিনি আরও জানান, “আমরা তো স্তম্ভিত হয়ে যাচ্ছি এটা জেনে যে, মক ড্রিলের ভিডিওটিকে জঙ্গি হামলা বলে সর্বত্র ছড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। ওটা কেবলই ছিল খুব দক্ষ কমান্ডোদের নিয়ে একটা মক ড্রিল। এটা নিয়ে দুশ্চিন্তা করার কোনও কারণই নেই”।
বুম আরও দেখে যে, একজন ফেসবুক ব্যবহারকারীও একই ভিডিও আপলোড করেছে, মি কৃষ্ণ যে তারিখটির উল্লেখ করেছিলেন, সেই ১১ জানুয়ারিতেই।

Show Full Article
Next Story