বিজেপি বিধায়ক রাজা সিংহের বোন মোটেই ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেননি

পোস্টটিতে কেরলের এক মহিলার ছবি দেওয়া হয়েছে এবং তাঁকেই রাজা সিংহের বোন বলা হয়েছে। মিথ্যা দাবি করা হয়েছে যে তিনি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন।

একটা স্ক্রিনশট ইমেজে 'দ্য নিউজ মিনিট'-এর একটি প্রতিবেদনের ছবি দেখানো হয়েছে, যাতে দাবি করা হয়েছে যে হায়দ্রাবাদের ভারতীয় জনতা পার্টির বিধায়ক রাজা সিংহের বোন ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন। দাবিটি আসলে মিথ্যে।

বুম রাজা সিংহের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তিনি জানান, ভাইরাল হওয়া পোস্টের দাবি একেবারেই মিথ্যে।

বিজেপি বিধায়ক রাজা সিংহ বুমকে জানান, "আমার মোট আট জন বোন আছেন। তাঁদের কেউই ধর্ম পরিবর্তন করে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেননি। পোস্টটি ভুয়ো।"

স্ক্রিনশটটিতে যে ছবিটি ব্যবহার করা হয়েছে, তাতে হিজাব পরে এবং হিজাব ছাড়া একজন মহিলাকে দেখা যাচ্ছে। ইনসেটে রাজা সিংহের একটি ছবি দেওয়া হয়েছে। স্ক্রিনশটটিকে কেটে এমন ভাবে দেখান হয়েছে যে এটিকে নিউজ মিনিটের একটি ওয়েব প্রতিবেদন বলে মনে হচ্ছে। কিন্তু ছবিটিতে যে লেখার হরফ ব্যবহার করা হয়েছে, তা দেখেই বোঝা যায় যে এটি ভুয়ো।

স্ক্রিনশটটিতে ফটোশপ করা টেক্সটে লেখা হয়েছে, 'হায়দরাবাদের বিজেপির বিধায়ক রাজা সিংহের বোন মায়া দেবী ইসলাম গ্রহণ করেছেন। তিনি বলেছেন, "ভারত একটি গণতান্ত্রিক দেশ। এখানে নিজের পছন্দের ধর্ম গ্রহণ করা আমাদের ব্যক্তিগত অধিকার, কেউ তাতে জোর করতে পারে না।"

টেক্সটে আরও বলা হয়েছে, "আমি কোনও ধর্মকে ঘৃণা করিনা বা কোনও রাজনৈতিক দলকে সমর্থন করিনা। আমি মানবিকতায় বিশ্বাস করি। আমার বাবা-মা আমার সব সিদ্ধান্তকে সব সময় সমর্থন করেছেন। আমার ভাই এইসব কারণে আমাদের থেকে আলাদা হয়ে গেছে।"

ফেসবুকে এই পোস্টটি ছড়িয়ে পড়েছে। হাবিব রহমান নামে একজন ফেসবুকে এই পোস্টটি দিয়েছেন এবং লিখেছেন, "হায়দরাবাদের ভারতীয় জনতা পার্টির বিধায়ক রাজা সিংহের বোন ইসলাম গ্রহণ করেছেন। এরকমই হয়—যখন কেউ রাজনীতির জন্য ঘৃণা ছড়ায়, তখন ঈশ্বর নিকটজনের মাধ্যমে এভাবেই শিক্ষা দেন। রাজা সিং, এবার তো সংযত হও, কতদিন ঘৃণা নিয়ে বাঁচবে…।"

তথ্য যাচাই

ছবি দুটির রিভার্স ইমেজ সার্চ করে আমরা কেরল থেকে প্রকাশিত 'দ্য নিউজ মিনিট'-এর ২০১৭ সালের ৩১ জুলাই তারিখের একটি প্রতিবেদন দেখতে পাই। প্রতিবেদনটির নাম ছিল, "কেরলে নিখোঁজ হিন্দু তরুণী ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন; হাইকোর্টের নিশ্চয়তা পেয়ে বাবা-মার কাছে ফিরে গেলেন।" এই প্রতিবেদনে যে ছবি ব্যবহার করা হয়েছে এবং ভুয়ো পোস্টের ছবি একই। প্রতিবেদনে ছবির মহিলাকে আথিরা ওরফে আয়েশা বলে চিহ্নিত করা হয়েছে।

এই প্রতিবেদন অনুযায়ী আথিরা তাঁর নিজের ইচ্ছায় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন। সাম্প্রতিক খবর অনুযায়ী, আথিরা একটি সাংবাদিক সম্মেলনে জানিয়েছেন যে তিনি "হিন্দু ধর্মে ফিরে গেছেন" এবং ইসলাম ছেড়ে দিয়েছেন।

টিএনএম প্রতিবেদনের স্ক্রিনশট।

রাজা সিংহের করা এক বিতর্কিত মন্তব্যের পর এই ভুয়ো পোস্টটি সামনে আসে। ওই বিতর্কিত মন্তব্যে তিনি বলেন যে আসাদুদ্দিন ওয়েইসি, অল ইন্ডিয়া মজলিস-এ-ইত্তেহাদুল মুস্লিমেন (এআইএমআইএম)–এর নেতা, "উগ্রপন্থীদের আর্থিক মদত দিচ্ছেন।"
তেলঙ্গানা রাজ্যের হায়দ্রাবাদের বিজেপির বিধায়ক রাজা সিংহ এর আগেও তাঁর ইসলামবিরোধী মন্তব্যের জন্য খবরে এসেছেন।

আগেই তিনি মাথায় ফেজ টুপি পরার জন্য হায়দ্রাবাদের এক পুলিশ অফিসারের নিন্দা করেছেন। একটি টুইটে তিনি লেখেন, " আমি

দীপাবলি ও দসেরায় হিন্দুদের আক্রমণের লক্ষ্য করা হয়। পুলিশের বন্ধুত্বপূর্ণ ব্যবহার কি শুধুই সংখ্যালঘুদের জন্য?"



Updated On: 2020-09-10T11:17:12+05:30
Claim Review :   হায়দ্রাবাদের বিজেপি বিধায়ক রাজা সিংহের বোন মোটেই ইসলাম ধর্ম গ্রহণ
Claimed By :  FACEBOOK POSTS
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story