হাতির দ্বারা মানুষকে পিষে মারার মর্মান্তিক ভিডিও শ্রীলঙ্কার

শ্রীলঙ্কার বন দফতরের অফিসাররা বুমকে জানিয়েছেন,ঘটনাটি সে দেশের ইয়ালা জাতীয় উদ্যানের, তামিলনাড়ুর মাসিনাগুড়ি জঙ্গলের নয়, ফেসবুক, মাসিনাগুড়ি, ভুয়ো,

ভারতের ফেসবুক ও হোয়াট্স্যাপে শ্রীলঙ্কার একটি মর্মান্তিক ভিডিও শেয়ার করা হচ্ছে, যাতে একটি হাতি একটি মানুষকে পিষে মারছে । সোশাল মিডিয়ায় ঘটনাটিকে তামিলনাড়ুর বলে চালানো হচ্ছে ।

৩৫ সেকেন্ডের ভিডিওটিতে জঙ্গলে একটি হাতিকে ঘুরতে দেখা যাচ্ছে, যেখানে একটি লোক তার দিকে যাচ্ছে এবং প্রথমে তার দৃষ্টি আকর্ষণ করার চেষ্টা করছে । পরের কয়েক সেকেন্ডে লোকটি হাত তুলে হাতিটিকে পোশ মানানোর চেষ্টা করে আর তাতেই হাতিটি উত্তেজিত হয়ে তার দিকে তেড়ে আসে । ভিডিওটিতে অন্য একটি লোককে দেখা যায় আক্রান্ত মানুষটিকে বাঁচানোর চেষ্টা করতে আর পিছন থেকে মহিলা ও শিশুদের আর্তনাদও শোনা যায় ।

সোশাল মিডিয়ায় ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে একটি ভুল ক্যাপশন সহ । তাতে লেখা হয়েছে, “তামিলনাড়ুর এক জঙ্গলে হাতির সঙ্গে সেলফি তুলতে গিয়ে গতকাল একটি লোক মারা গেছে”।


নীচের ভিডিওটি মর্মান্তিক, বুঝে-শুনে দেখুন

ঘটনাটি শ্রীলঙ্কার, ভারতের নয়

বুম ভিডিওটি বিশ্লেষণ করে দেখেছে, ঘটনাটি শ্রীলঙ্কার ইয়ালা ন্যাশনাল পার্ক-এর । শ্রীলঙ্কার একটি স্থানীয় ডিজিটাল সংবাদ-সাইট নিউজফার্স্ট-এও ঘটনাটির রিপোর্ট বের হয়েছে এখানে পড়ুন।

শ্রীলঙ্কার বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ দফতরের সঙ্গেও আমরা যোগাযোগ করি, যারা জানায় ঘটনাটি সে দেশেরই । দফতরের সহকারি অধিকর্তা বীরসিংহে শান্তা বুমকে জানান, “ঘটনাটি গত ১৮ ডিসেম্বরের, হাম্বানটোটার ইয়ালা ন্যাশনাল পার্কের । এক ব্যক্তি বুনো হাতিটিকেপোষ মানাতে জাদু ও মন্ত্রতন্ত্রের সাহায্য নিয়েছিল । কিন্তু ও সব যে বেকার এবং হাতিটা রেগে গিয়ে নিজেকে বিপন্ন মনে করে লোকটিকে আক্রমণ করে”।


তিনি আরও বলেন, “লোকটি মোটেই হাতিটির সঙ্গে সেলফি তোলার চেষ্টা করছিল না । ঘটনার সময় লোকটি নেশাগ্রস্ত ছিল কিনা, সেটাও স্পষ্ট নয় । তবে অন্য কিছু ভিডিও আছে, যাতে একই ধরনের জাদু বা বশীকরণের তুকতাক দিয়ে হাতি বশ করার চেষ্টার নমুনা আছে এবং এই লোকটিও হয়তো সেরকম কিছুই চেষ্টা করছিল”।

Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.