অসমের এক নিগৃহীত বালিকার ভিডিও কেরলের ঘটনা বলে চালানো হচ্ছে

ভিডিওতে যে বালিকাটিকে দেখা যাচ্ছে সে কেরলের মেয়ে নয়, ঘটনাটি অসমের মাওয়ামারির।

Claim

‘‍‘এই মালয়ালি মেয়েটির দুর্দশা দেখুন, যে একটি বাঙালি ছেলের সঙ্গে পালিয়ে গিয়েছিল। চিৎকার করে কাঁদতে-কাঁদতে মেয়েটি তার মাকে ডাকছে, এই দৃশ্যটি নিঃসন্দেহে আমাদের বিচলিত করবে। অন্য রাজ্যের কোনও অপদার্থ ছেলের সঙ্গে নিজের বাড়ি-ঘর ছেড়ে যখন কোনও মেয়ে চলে যায়, তাকে অনেক দুঃখকষ্ট সহ্য করতে হয়। কখনও-কখনও এমন পরিস্থিতিও তৈরি হয়, যখন তার আর পালাবার রাস্তাও খোলা থাকে না এবং শেষ পর্যন্ত সে মারাও যায়। আশা করা যাক, আমাদের ছেলেমেয়েরা এই ভিডিওটা দেখে কিছু দরকারি শিক্ষা নেবে’’—মালয়ালম থেকে অনূদিত: 'ഇത് ഒരു ബംഗാളിയുടെ കൂടെ പോയ ഒരു മലയാളി പെൺകുട്ടിയുടെ അവസ്ഥയാണ്. എന്റെ അമ്മേന്നു വിളിച്ചു പറഞ്ഞു കരയുന്നത് വിഷമമുണ്ടാക്കുന്ന കാഴ്ച തന്നെ. ആളും അർത്ഥവും, നാട്ടിൽ അറിയുന്നവരുടെ കൂടെയും സ്നേഹിച്ചു പോകുന്ന പോലെയല്ല ഇതൊന്നുമില്ലാത്തവന്റെ കൂടെയും സംസ്ഥാനം വിട്ടു പോകുന്നവർക്കും നേരിടേണ്ടി വരിക. ഒന്നു രക്ഷപ്പെടാൻ പോലുമാകാത്ത അവസ്ഥയിൽ ജീവച്ഛവമാകുകയോ നഷ്ടപ്പെടുകയോ ചെയ്യാം. ഇനിയും പുറത്തേക്ക് പഠിക്കാൻ പോകുന്ന കുട്ടികളും നാട്ടിലെ കുട്ടികളും ഈ വീഡിയോ കണ്ട് വിലയിരുത്തുക.'

Fact

ভিডিওতে দেখতে পাওয়া এই মেয়েটি অসমের মাওয়ামারি গ্রামের, কেরলের নয় l এই বিশেষ ঘটনাটিতে ১৫ বছরের একটি বালিকাকে তার বাবা বেধরক মারছে সে গণিকাবৃত্তিতে নামতে অনিচ্ছুক হওয়ায় l মেয়েটির বাবা এবং ঠাকুমা তাকে এই জঘন্য কাজে নামাতে জোর-জবরদস্তি করছিল l ভিডিওটি ভাইরাল হয়ে যাওয়ার পর পুলিশ তার বাবাকে গ্রেফতার করে l ২০১৯ সালের অগস্ট মাসেও বুম এই একই ভিডিওটির বিষয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছিল l

To Read Full Story, click here
Claim Review :  
Claimed By :  Unknown
Fact Check :  Unknown
Show Full Article
Next Story