তাবরেজ আনসারির মৃত্যুর বদলা নেওয়ার দাবিতে আহ্বানের ভিডিওটি পুরনো ভিডিওকে কাটছাঁট করে সাজানো

আরএসএস কর্মীদের বিরুদ্ধে তাবরেজ আনসারির হত্যার বদলা নেওয়ার দাবিটি দুবছর আগের একটি মহরমের মিছিলের ভিডিওতে জুড়ে দেওয়া হয়েছে l সুদর্শন নিউজ এই সাজানো ভুয়ো ভিডিওটি শেয়ার করেছে

মহরমের মিছিলের একটি পুরনো ভিডিও—যাতে মিছিলকারীরা তরোয়াল নিয়ে আস্ফালন করছে—তাবরেজ আনসারির মৃত্যুর বদলা নিতে মিছিলকারীদের দাবি হিশেবে জুড়ে দিয়ে সাজানো হয়েছে ।

গত মাসে ঝাড়খণ্ডে একদল লোক তাবরেজকে চোর সন্দেহে বেদম পিটিয়েছিল এবং তাকে জোর করে ‘জয় শ্রীরাম’ এবং ‘জয় হনুমান’ উচ্চারণ করতে বাধ্য করেছিল । এর পরেই পুলিশি হেফাজতে 22 জুন তাবরেজের মৃত্যু হয় ।

30 সেকেন্ডের এই ভিডিওটিতে একদল লোককে দেখা যাচ্ছে তরোয়াল ও হকি স্টিক উঁচিয়ে আস্ফালন করতে-করতে চলেছে । আর সেই মিছিলের নেপথ্যে শোনা যাচ্ছে ‘তাবরেজের খুনিদের গুলি করে মারো’, ‘নারায়ে তকদির জিন্দাবাদ-জিন্দাবাদ’, ‘আল্লা-হু-আকবর’, ‘আরএসএস নিপাত যাক’, ‘হাফ-প্যান্ট পরাদের গুলি মারো’, ‘তাবরেজ তোমার রক্ত, হবে নাকো ব্যর্থ’, ইত্যাদি শ্লোগান ।

ভিডিওটির ক্যাপশন দেওয়া হয়েছে --“ভারতের রাজপথ দিয়ে ধর্মীয় কট্টরপন্থীদের হেঁটে যাওয়ার একটি ভীতিপ্রদ দৃশ্য । তরোয়াল উঁচিয়ে তারা স্লোগান দিচ্ছে— হাফ-প্যান্ট পরাদের মেরে ফেলো । তার মানে ওরা আরএসএস এবং অন্য হিন্দু সংগঠনগুলির উদ্দেশে মৃত্যু-পরোয়ানা জারি করছে” ।

সুদর্শন নিউজের একটি লোক-খ্যাপানো ফেসবুক পেজেও ভিডিওটি এই ক্যাপশন সহ শেয়ার করা হয়েছে । পোস্টটির আর্কাইভ বয়ান দেখতে এখানে ক্লিক করুন ।

টুইটার এবং ফেসবুকেও ভিডিওটি ব্যাপকভাবে শেয়ার হয়ে চলেছে—

তথ্য যাচাই

বুম ভিডিওটিকে মূল কয়েকটি ফ্রেমে ভেঙে খোঁজখবর চালিযে ইউ-টিউবে একটি সংযোগের সন্ধান পায়, যেখানে 2017 সালে ওই একই ভিডিও আপলোড করা হয়েছিল ।



ভিডিওটির ক্যাপশন ছিল—ডেহরি-অন-শোন-এ মহরম--2017 । ডেহরি বিহারের একটি জেলা । বুম যখন 2017 সালের মহরমের তারিখ যাচাই করে, দেখা যায়, ওই বছর সেপ্টেম্বরের 21 তারিখ থেকে অক্টোবরের 19 তারিখ পর্যন্ত ছিল মহরম পালনের পরব । ভিডিওটি আপলোড হয় নভেম্বরের 11 তারিখ ।

বর্তমানে ভাইরাল হওয়া ভিডিওটিতে যেমন, 28 সেকেন্ডের ওই মূল ভিডিওতে কিন্তু তেমন কোনও স্লোগান দেওয়ার ব্যাপার নেই । বরং নেপথ্যে কেবল মাইকে বলতে শোনা যাচ্ছে—“আপনারা এগিয়ে চলুন, দয়া করে এগিয়ে চলুন”, ইত্যাদি । ভিডিওটির শেষ দিকে একটি কণ্ঠস্বর মহরম উপলক্ষে সমবেত জনতার উদ্দেশে অস্পষ্ট কিছু বলছে ।

বুম এটা প্রতিষ্ঠা করতে সক্ষম হয়েছে যে, তাবরেজ আনসারির মৃত্যুর অনেক আগে ইন্টারনেটে এই ভিডিওটি আপলোড হয়েছিল । শুধু তাই নয়, রীতিমত দুরভিসন্ধি নিয়ে ভিডিওটিকে কেটে-ছেঁটে সাজানো হয়েছে এবং স্লোগানগুলো পরে বাইরে থেকে জুড়ে দেওয়া হয়েছে ।

অন্য একটি ভিডিও

ইউ-টিউবের অন্য একটি সংযোগ থেকে ওই একই ভিডিও বুম শেয়ার হতে দেখেছে, যেটিতে ধারা-বিবরণী অন্য একটি কণ্ঠস্বরের । এই ভিডিওটির নেপথ্যে আবার বাবাসাহেব আম্বেদকরকে নিয়ে গাওয়া একটি গান শোনানো হচ্ছে ।



এটি আবার 2018 সালে আপলোড করা হয় ।

একই স্লোগান, আরও একটি ভিডিও

ভাইরাল হওয়া মহরমের ভিডিওতে যে সব স্লোগান শোনা গেছে, সেই একই স্লোগান দিয়ে মোটরসাইকেল আরোহী যুবকদের বিক্ষোভ প্রদর্শনের একটি ভিডিও-ও বুম খুঁজে পেয়েছে। বিক্ষোভকারীরা ভারতীয সোশাল ডেমোক্রাটিক পার্টির পতাকা নিয়ে মিছিল করছিল, যে রাজনৈতিক দলটি প্রতিষ্ঠিত হয় 2009 সালে ।

ভিডিওটিতে বিক্ষোভকারীদের ‘নারায়ে তকদির’, ‘আরএসএসকে মারো’, ‘হাফ-প্যান্টওয়ালাদের মারো’, ‘তাবরেজের রক্ত বিপ্লব আনবে’ ইত্যাদি স্লোগান দিতে শোনা যাচ্ছে ।

বুম সোশাল ডেমোক্রাটিক পার্টির দফতরে এ বিষয়ে আরও বিশদ জানতে যোগাযোগ করে। দফতরে এক দলীয় কর্মকর্তা আমাদের জানান, তাঁদের দল তাবরেজ আনসারির প্রশ্নে বেশ কয়েকটি বিক্ষোভ কর্মসূচি রূপায়ন করেছে বটে, তবে ভিডিওটির ব্যাপারে তাঁদের কিছু জানা নেই ।

Claim :   তাবরেজ আনসারির মৃত্যুর বদলা নিতে মিছিলকারীদের
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  FALSE
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.