হোয়াটসঅ্যাপে গির্জা পোড়ানর ভা্ইরাল হওয়া মেসেজ ভুয়ো

একটি ভাইরাল মেসেজে সাবধান করে দিয়ে বলা হয়েছে যে, ২৪ ঘন্টার মধ্যে ২০০ গির্জা পুড়িয়ে দেওয়া হবে, আর হত্যা করা হবে ২০০ ধর্মযাজককে

Claim

গত রাতে ২০ গির্জা পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে, এবং আজ রাতে ওরা ‘ওলিসাবাঙ্গ প্রদেশে’-এ আরও ২০০ গির্জা ধ্বংস করতে চায়। আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে তারা ২০০ খ্রিস্টান ধর্মযাজককে মেরে ফেলতে চায়। সব খ্রিস্টানরা এখন গ্রামে লুকিয়ে আছে। তাদের জন্য প্রার্থনা করুন আর এই মেসেজ পৃথিবীজুড়ে ছড়িয়ে থাকা সব খ্রিস্টানদের কাছে পৌঁছে দিন। ভগবানের কাছে মিনতি করুন তিনি যেন ভারতে বসবাসকারি আমাদের ভাই আর বোনেদের প্রতি দয়া করেন। “এই মেসেজ পাওয়া মাত্রই অন্যদের কাছে পাঠিয়ে দিন। প্রাণদন্ডে দন্ডিত ২২ খ্রিস্টান মিশনারি পরিবারের জন্য প্রার্থনা করুন। যত তাড়াতাড়ি পারেন এটি পাঠাতে থাকুন, যাতে অনেকে প্রার্থনা করতে পারেন!!! ভালবাসাসহ, জয়েস মেয়ার।

Fact

এই মেসেজটি ভুয়ো কারণ, ‘ওলিসাবাঙ্গ প্রদেশে’ নামের কোনও রাজ্য নেই ভারতে। তাছাড়া ২০ গির্জা পোড়ান বা ২২ খ্রিস্টান মিশনারি পরিবারকে প্রাণদন্ডে দন্ডিত করার কোনও সংবাদের হদিস পায়নি বুম। সাধারণ গুগুল সার্চ করে দেখা যায় ২০১০ সালে ‘স্নেপস’ এরকমই এক মেসেজ খন্ডন করে। সেটিতে বলা হয়েছিল, বৌদ্ধ উগ্রপন্থীরা খ্রিস্টান গির্জা পুড়িয়ে দিচ্ছে। বুম ধর্মপ্রচারক জয়েস মেয়ারের সঙ্গে এ ব্যাপারে যোগাযোগ করে। কারণ, মেসেজে তাঁর নামই রয়েছে। তাঁর টিম জানায় যে, ওই মেসেজ তাঁর কাছ থেকে আসেনি।

To Read Full Story, click here
Show Full Article
Next Story