প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ২০১৪ বিবৃতি ছড়াল 'দ্য কাশ্মীর ফাইল' নিয়ে মন্তব্য বলে

বুম যাচাই করে দেখে ২০১৪ সালের ভিডিওটি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর 'দ্য কাশ্মীর ফাইল' দেখার পর প্রতিক্রিয়া বলে ছড়াচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর (Narendra Modi) ২০১৪ সালের পুরনো বিবৃতির ভিডিও ভুয়ো দাবি সহ সোশাল মিডিয়ায় 'দ্য কাশ্মীর ফাইলস' (The Kashmir Files) সিনেমা সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রীর প্রতিক্রিয়া বলে দাবি করা হচ্ছে।

নব্বইয়ের দশকে রাজনৈতিক অস্থিরতার আবহে কাশ্মীরি ব্রাহ্মণ পন্ডিতদের উপত্যকা পরিত্যাগ ঘিরে বিবেক অগ্নিহোত্রী (Vivek Agnihotri) পরিচালিত 'দ্য কাশ্মীর ফাইলস' মুক্তি পাওয়া প্রসঙ্গে ছবিটি ছড়ানো হচ্ছে। ছবিটি মেরুকরণ ও প্রপাগাণ্ডার উদ্দেশে ছবি নির্মিত হয়েছে এবং একাধিক বিষয়ে তথ্য প্রমাদ রয়েছে বলে বিজেপি বিরোধী রাজনীতিক ব্যক্তি ও দর্শকদের একাংশের অভিযোগ

১ মিনিট ৩২ সেকেন্ডের ওই ভিডিওতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে হিন্দিতে বলতে শোনা যায়, "সবচেয়ে গভীর ক্ষত যদি কোথাও হয়ে থাকে তা হয়েছে কাশ্মীরে। তা হয়েছে শ্রীমান ফারুখ আবদুল্লা'জির পিতার রাজনৈতিক কার্যকালে হয়েছে। শ্রীমান ফারুখ আবদুল্লা'জির রাজনৈতিক কার্যকালে হয়েছে। শ্রীমান ফারুখ আবদুল্লা'জির পুত্রের রাজনৈতিক কার্যকালে হয়েছে। এই দেশে একমাত্র কাশ্মীর যেখানে পণ্ডিতদের ধর্মের ভিত্তিতে বিতাড়িত করে দেওয়া হয়। যা সুফি পরম্পরার ভিডিও ছিল তাকে আপনি নিজের রাজনীতির স্বার্থে ধর্মীয় রঙ দিয়েছেন। আর এই জন্য, আপনাকে প্রশ্ন করা, মোদীকে ভোট দেওয়া ব্যক্তিতে সাগরে ডোবানোর কথা বলো। প্রথমে আপনার পিতা, আপনার ছেলে কাশ্মীরবাসীদের সারা পৃথিবীতে ধর্মীয় রঙ দেওয়ার পাপ কাশ্মীরের মাটিতে আপনি করেছেন। আর যদি ডুবতে হয় কার ডুবে যাওয়া উচিত? আয়নার সামনে নিজের চেহারা দেখে নাও? আপনার পিতাকে আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে প্রশ্ন করো যারা কাশ্মীরি পন্ডিতদের ওখানে থেকে তাড়িয়ে দেয় কোন মুখে দেশে সাম্প্রদায়িকতা বিহীন হওয়া উপদেশ দেয়। এটা আমার দায়বদ্ধতা। সবার সঙ্গে সবার উন্নতি। আর আমি ওই মন্ত্র নিয়ে চলবো। ফারুক আবদুল্লার মত যত লোক ন্যয় অন্যায় কথা বলুক এতে গাড়ি লাইচ্যুত হবে না।"

ভিডিওটি ফেসবুকে শেয়ার করে ক্যাপশন লেখা হয়েছে, "দ্য কাশ্মীর ফাইলস দেখার পর নরেন্দ্র মোদী কি বললেন শুনুন, কাশ্মীরি পন্ডিতদের যেভাবে নরসংহার করা হয়েছিল একটি রাজনৈতিক দলের মদতে, লক্ষ্য একটাই ছিল, তাই কাশ্মীর থেকে প্রথমেই ধারা 370 তুলে দেওয়া হয়েছে।"

ভিডিওটি দেখুন এখানে

আরও পড়ুন: ভিডিওর মিথ্যে দাবি পাঞ্জাবে আপ জেতার পর খালিস্তানি স্লোগান

তথ্য যাচাই

বুম যাচাই করে দেখে ভাইরাল ভিডিওটি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর 'দ্য কাশ্মীর ফাইল' সিনেমা দেখার পর প্রতিক্রিয়া নয়। ২০১৪ সালের দেশের লোকসভা নির্বাচনের আগে দেওয়া ফারুক আবদুল্লাকে জবাব দেওয়া একটি বিবৃতির অংশ।

বুম ভিডিওটির মূল ফ্রেমগুলি রিভার্স সার্চ করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেলে ২০১৪ সালের ২৮ এপ্রিল ৫ মিনিট ৪ সেকেন্ড দীর্ঘ একটি ভিডিও খুঁজে পায়।

ভিডিওটির শিরোনাম, "নরেন্দ্র মোদী ধর্মনিরপেক্ষতা সম্পর্কে তাঁর মতামত দিচ্ছেন।" ভিডিওটির ২ মিনিট ৩১ সেকেন্ড সময় পর্ব থেকে ৩ মিনিট ৫৩ সেকেন্ড সময়ে ওই ভাইরাল বক্তব্যের দৃশ্যটি দেখা যাবে।

(মূল ইংরেজিতে শিরোনাম: Shri Narendra Modi describes his views on Secularism)

বুম একই ভিডিও গণমাধ্যম এপিবি নিউজের চ্যানেলে খুঁজে পায়। ২৮ এপ্রিল ২০১৪ আপলোড করা এবিপি নিউজের ভিডিওর শিরোনাম, "মোদীর ফারুখ আবদুল্লাকে জবাব ধর্মনিরপেক্ষতা সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে কাশ্মীরে।"

(ইংরেজিতে মূল শিরোনাম, "Modi hits back at Farooq Abdullah, says secularism most hurt in Kashmir")

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের প্রতিবেদনঅনুযায়ী, রবিবার ২৭ এপ্রিল ২০১৪ লোকসভা ভোট প্রচারের র‍্যালিতে ফারুখ আবদুল্লা মন্তব্য করেন যাঁরা প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী নরেন্দ্র মোদীকে ভোট দেবেন তাঁদের সাগরে ঝাঁপ দেওয়া উচিত। এই কথার প্রত্যুত্তরে তৎকালীন গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী নরেন্দ মোদী তাঁর সংশ্লিষ্ট বক্তব্যের ভিডিও প্রকাশ করেন।

এনডিটিভির ইউটিউব চ্যানেলে একই ভিডিও ২৮ এপ্রিল, ২০১৪ আপলোড করা হয়েছিল।

'দ্য কাশ্মীর ফাইল' প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বিজেপি বিরোধীদের উদ্দেশে কটাক্ষ করে বলেন, "সমগ্র পারিপার্শ্বিক পরিবেশ কাজ করেছে সত্য চাপা ধামা চাপা দিয়ে রাখতে। এই সিনেমা তাদের টনক নড়িয়ে দিয়েছে।"

আরও পড়ুন: না, পশ্চিমবঙ্গ সরকার মুসলিম ব্যবসায়ীদের জন্য জিএসটি মকুব করেনি

Updated On: 2022-03-17T16:22:19+05:30
Claim :   ভিডিওর দাবি ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ নরেন্দ্র মোদীর বক্তব্য
Claimed By :  Facebook Post
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.