না, পশ্চিমবঙ্গে রাজনৈতিক হিংসার সঙ্গে এই ভিডিওটির কোনও যোগ নেই

বুম দেখে মূল ভিডিওটি অন্ধ্রপ্রদেশের একটি গ্রামের। একটি মেয়েকে তার কোভিড-আক্রান্ত বাবাকে জল দেওয়ার দৃশ্য।

একটি হৃদয়স্পর্শী ভিডিওতে একটি মেয়েকে তার কোভিড-আক্রান্ত বাবাকে জল দিতে দেখা যাচ্ছে। অন্ধ্রপ্রদেশের (Andhra Pradesh) একটি গ্রামের বাসিন্দারা তাঁকে গ্রাম থেকে বার করে দেন। কিন্তু সেই ছবি এখন এই মিথ্যে দাবি সমেত শেয়ার করা হচ্ছে যে, পশ্চিমবঙ্গে (West Bengal) তৃণমূল কংগ্রেস (Trinamool Congress) জেতার পর, ওই ব্যক্তিকে আক্রমণ করা হয়।

বুম দেখে আসল ভিডিওটি অন্ধ্রপ্রদেশে তোলা হয়। সেখানে এই মুমূর্ষু কোভিড রোগীকে তাঁর মেয়ে, মায়ের নিষেধ সত্ত্বেও, জল দেয়। খবরে প্রকাশ, গ্রামবাসীরা ওই রোগীর পরিবারকে গ্রাম থেকে কিছুটা দূরে একটি কুঁড়ে ঘরে থাকতে বাধ্য করে।

সদ্যসমাপ্ত বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূল কংগ্রেসের বিপুল জয়ের পর, পশ্চিমবঙ্গজুড়ে রাজনৈতিক সংঘর্ষ শুরু হয়। প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, সে রাজ্যে দু'দিনে ১৪ জন হিংসার বলি হন। রাজ্যের বিভিন্ন দিকে সংঘর্ষ বন্ধ করতে, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ৪ মে ২০২১ এক জরুরি বৈঠক ডাকেন।

নির্বাচন-পরবর্তী হিংসার পরিপ্রেক্ষিতে, সোশাল মিডিয়া সম্পর্কহীন ভিডিও ও ছবিতে ছয়লাপ হয়ে গিয়েছে। এবং সেগুলিকে পশ্চিমবঙ্গের বলে চালানো হচ্ছে।

সেরকমই এক ভিডিওতে মাটিতে শুয়ে থাকা এক ব্যক্তিকে জল দেওয়ার সময় একটি মেয়েকে এক মহিলার সঙ্গে ধস্তাধস্তি করতে দেখা যাচ্ছে। হিন্দিতে লেখা বয়ানে দাবি করা হয়েছে, "পশ্চিমবঙ্গে মমতার গুণ্ডারা সব সীমা অতিক্রম করছে। তাড়াতাড়ি সিদ্ধান্ত নিন, মোদীজি, নচেৎ এই আর্তনাদ আপনাকে কখনওই ক্ষমা করবে না। #৩৫৬ ধারায় রাষ্ট্রপতির শাসন জারি করুন।"

(হিন্দিতে লেখা হয়: प●बंगाल में ममता के खूनी भेड़िये निर्ममता की सारी हदें पार कर चुके हैं। अविलम्ब निर्णय लो मोदी जी अन्यथा ये चीत्कारें कभी माफ नहीं करेगी... #Article356 राष्ट्रपति शासन लगाकर प्रतिकार कीजिये... अन्यथा आने वाला समय माफ नहीं करेगा...)

ভিডিওটি অস্বস্তিকর হওয়ায়, আমরা সেটিকে এখানে দিইনি।


আর্কাইভ দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

ভিডিওটি টুইটারেও, একই দাবি সমেত, পশ্চিমবঙ্গের ঘটনা বলে ভাইরাল হয়েছে।




আরও পড়ুন: অমিত শাহের সঙ্গে মহিলার ছবি মিথ্যে দাবিতে জড়াল ভোট পরবর্তী হিংসায়

তথ্য যাচাই

বুম ভিডিওটি খুঁটিয়ে দেখে। সেটিতে যে কথা শোনা যায়, তা ছিল তেলুগু ভাষায়। সেটিকে সূত্র ধরে, প্রাসঙ্গিক কি-ওয়ার্ড দিয়ে সার্চ করলে, আমরা ৫ মার্চ ২০২১ 'ইন্ডিয়া টুডে'তে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদন দেখতে পাই।

তাতে বলা হয়. অন্ধ্রপ্রদেশের শ্রীকাকুলামে জি সিগদাম মণ্ডলের কোয়ানাপেটা গ্রামে ঘটনাটি ঘটে। ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে একটি মেয়ে কাঁদতে কাঁদতে তার মৃতপ্রায় বাবাকে জল দিচ্ছে আর তার মা তাকে টেনে সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছেন। ভিডিওটিতে যে ব্যক্তিকে দেখা যাচ্ছে তাঁর নাম অসিরানাইডু। পরীক্ষা করে দেখা যায়, উনি কোভিড পজিটিভ।

অন্ধ্রপ্রদেশের বিজয়ওয়াড়ায় মজুরের কাজ করতেন অসিরানাইডু। তাঁর পরিবারের সকলেই পজিটিভ প্রমাণিত হওয়ায় এবং লকডাউনের আশঙ্কায়, তাঁরা সপরিবার শ্রীকাকুলাম ফিরে আসেন। তাঁদের অসুস্থতার কথা জানতে পেরে, গ্রামবাসীরা তাঁদের গ্রাম থেকে কিছুটা দূরে একটি কুঁড়েঘরে থাকতে বলেন।

ভিডিওটিতে অসিরানাইডুকে তাঁর মেয়ে ও স্ত্রীর সামনে শ্বাস কষ্টে ভুগতে দেখা যাচ্ছে। উনি পরে মারা যান।

ইন্ডিয়া টুডে'র প্রতিবেদনটিতে ওই ভিডিও থেকে নেওয়া স্ক্রিনশট ব্যবহার করা হয়। ওই ঘটনার ওপর এনডিটিভি'র একটি রিপোর্টও বুম দেখতে পায়।

ভিডিওটি অস্বস্তিকর। দেখবেন কিনা বিবেচনা করবেন।

আরও পড়ুন: ভোট পরবর্তী হিংসা: জখম বাংলাদেশি মহিলার পুরনো ছবি ছড়াল বাংলার বলে

Claim Review :   মমতা বন্দোপাধ্যায়ের গুন্ডাদের করা নির্বাচন পরবর্তী হিংসা দেখে বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করা হোক
Claimed By :  Social media pages
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story