ওষুধের স্ট্রিপে ক্যাপসুলের বদলে আলপিন ভরা ভিডিওগুলি ভারতের নয়

বুম দেখে দুটি ভিডিওর কোনওটিই ভারতের নয়—একটি সম্ভবত পাকিস্তানের করাচির কোনও ওষুধ নির্মাতা সংস্থার আর অন্যটি বসনিয়ার।

ওষুধের স্ট্রিপে ক্যাপসুলের বদলে আলপিন ভরা দুটি সম্পর্কহীন ভিডিও ভাইরাল করে প্রচার হচ্ছে যে, এগুলি ভারতে মুসলিমরা হিন্দুদের মারার জন্যে এক নতুন কৌশল বের করেছে।

বুম দেখেছে, দুটি ভিডিওই সম্পূর্ণ আলাদা দুটি জায়গার—একটি পাকিস্তানের করাচির কোনও ওষুধ প্রস্তুতকারক সংস্থার, আর অন্য ভিডিও ক্লিপটি বসনিয়ার হারজেগোভিনায় অবস্থিত একটি ওষুধ নির্মাতা কোম্পানির।

ভাইরাল হওয়া ভিডিওটির একটিতে এক ব্যক্তিকে একটি ওষুধের স্ট্রিপ থেকে ক্যাপসুল খুলে তার ভিতর থেকে আলপিন বের করতে দেখা যাচ্ছে। দ্বিতীয় ক্লিপটিতেও একই ভাবে ওষুধের স্ট্রিপে সাজানো ক্যাপসুলের ভিতর থেকে পেরেক বের করতে দেখানো হয়েছে।

৩০ সেকেন্ডের এই ক্লিপটি যে ভুয়ো দাবি সহ শেয়ার করা হয়েছে, তার অনুবাদ করলে দাঁড়ায়: "বিধর্মী হিন্দুদের (কাফের) হত্যা করার জন্য জেহাদিদের নতুন কৌশল—নাম-করা কোম্পানির ওষুধ বা ক্যাপসুলের ভিতর আলপিন ও অন্যান্য ক্ষতিকর রাসায়নিক ভরে বিক্রি করা, যা বিধর্মী হিন্দুরা কিনে খাবে এবং মরবে।"

পোস্টটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

পোস্টটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

ফেসবুকেও ভাইরাল

ফেসবুকে খোঁজ লাগিয়ে আমরা একই ক্যাপশন সহ একাধিক পোস্ট দেখেছি।

তথ্য যাচাই

ভাইরাল হওয়া ক্লিপগুলি দেখলেই বোঝা যায়, এই দুটি আলাদা-আলাদা জায়গায় তোলা, যারা ওষুধ মোড়কে ভরছে, তাদের হাতের চেহারাও স্বতন্ত্র। একটি ভিডিওতে ওষুধের নাম প্যাকেটের ওপর উর্দু ভাষায় লেখা দেখা যাচ্ছে। আর অন্য একটিতে রুশ ভাষায় প্যাকেটকারীদের কথা বলতে শোনা যাচ্ছে। এই সূত্র অনুসরণ করে আমরা উর্দু ও ইংরেজি মূল শব্দ বসিয়ে খোঁজ চালিয়ে দেখলাম, ইউটিউবে ২১ ফেব্রুয়ারি একই বিষয়ের আরও দীর্ঘ ভিডিও আপলোড করা হয়েছে। ওই ভিডিওর ক্যাপশন কিন্তু— "রোগীদের পেরেকে ভরা ওষুধ খাওয়ানো হচ্ছে।"

এই ভিডিও ক্লিপটিতে ওষুধের স্ট্রিপটির ওপর তার নাম পড়া যাচ্ছে—এসোরালl আরও কাছ থেকে দেখলে নজরে পড়বে ওষুধ সংস্থাটির নাম সিটি ফার্মাসিউটিকাল ল্যাবরেটরিজ, যার ঠিকানা দেওয়া রয়েছে করাচি। স্ট্রিপটির ওপর উর্দু ভাষাতেও লেখা ছাপা রয়েছে, যা প্রমাণ করে এটি ভারতে তৈরি নয়।

এর পর আমরা এসোরাল-এর খোঁজখবর শুরু করি এবং দেখি যে এটি বাংলাদেশের ওষুধ নির্মাতা এসকায়েফ ফার্মাসিউটিকালস-এর তৈরিl অথচ ভিডিওতে যে ক্যাপসুলগুলো দেখানো হয়েছে, সেগুলির কোথাও এসকায়েফ সংস্থার নাম নেইl বুম এসকায়েফ সংস্থার সঙ্গে যোগাযোগ করলে তারা জানায়, "আমরা ভারত কিংবা পাকিস্তানে কোনও ওষুধ বিক্রি করি না। কোনও ভারতীয় এজেন্সিও আমাদের ওষুধ সে দেশে কিংবা পাকিস্তানে রফতানি করার দায়িত্বপ্রাপ্ত নয়।"

সংস্থার ওয়েবসাইটে এসোরাল-এর যে ছবি পাওয়া যাচ্ছে, তার সঙ্গে ভাইরাল ভিডিওতে দেখানো ছবির কোনও মিল নেই

ছবিটি দেখতে ক্লিক করুন এখানে

দ্বিতীয় ভিডিও ক্লিপটির জন্যে আমরা 'ট্যাবলেটের ভিতর পেরেক' শব্দগুলি বসিয়ে অনুসন্ধান করলাম এবং দীর্ঘতর একটি ভিডিও-র সন্ধান পেলাম, যাতে একই ওষুধের স্ট্রিপ দেখানো হয়েছে এবং লেখা রয়েছে রুশ ভাষায়।

গুগল প্রযুক্তি ব্যবহার করে আমরা দেখলাম, স্ট্রিপের গায়ে লেখা "এন্টারোফুরিল ২০০ মিলিগ্রাম ক্যাপসুল নিফুর্কমাজিল বোস্কালজেন"l খোঁজ করে দেখা গেল, এই ওষুধ সংস্থাটি বসনিয়া-হার্জেগোভিনায় অবস্থিত।

পোস্টটি দেখতে ক্লিক করুন এখানে

ভাইরাল ভিডিওতে যেমনটা দাবি করা হয়েছে, বুম স্বাধীনভাবে তার সত্যতা যাচাই করে দেখতে পারেনি। কিন্তু এই ভিডিওগুলি যে ভারত সম্পর্কিত নয়, সে বিষয়ে নিশ্চিত হতে পেরেছে।

আরও পড়ুন: বিবিসি ব্রিগেড সভাকে বলেনি পৃথিবীর বৃহত্তম শান্তিপূর্ণ রাজনৈতিক জমায়েত

Updated On: 2021-03-04T13:55:15+05:30
Claim Review :   ভিডিও দেখায় মুসলিমরা ওষুধের স্ট্রিপে ক্যাপসুলের বদলে আলপিন ভরেছে
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story