ভারতের যুব সমাজ নিয়ে রাহুল গাঁধীর ভাষণের ভিডিও ছাঁটাই করা

বুম দেখে মূল দীর্ঘ ভিডিওটিতে রাহুল গাঁধী ভুল শুধরে বলেন তিনি ‘বিশ্ব’ বলতে চেয়েছিলেন, ভারত নয়।

কাটছাঁট করে কংগ্রেস নেতা রাহুল গাঁধীর (Rahul Gandhi) একটি পুরনো ভিডিও সোশাল মিডিয়ায় শেয়ার করা হচ্ছে। সেটি শেয়ার করার মধ্যে দিয়ে মিথ্যে দাবি করা হচ্ছে যে, বিশ্বের ওপর ভারতের যুব সমাজের প্রভাব সম্পর্কে বলতে গিয়ে তিনি এক হাস্যকর উক্তি করেন।

সম্পাদনা করা ওই ভাইরাল ভিডিওটিতে, ভারতের যুব সমাজ কীভাবে ভারতকে বদলাতে পারে তার ওপর বক্তব্য রাখতে দেখা যাচ্ছে রাহুল গাঁধীকে। কিন্তু বিশ্বে তাদের অবদানের কথা না বলে, উনি 'ভারত' বলে বসেন।

ভাইরাল ভিডিওটিতে তাঁকে বলতে শোনা যায়, "হিন্দুস্থানের যুব সমাজ কেবল মাত্র হিন্দুস্থানকেই বদলাতে পারে না বরং সারা দেশকেই বদলাতে পারে।"

কিন্তু বুম দেখে, আসল ও দীর্ঘতর ভিডিওটিতে রাহুল গাঁধী সঙ্গে সঙ্গে নিজেকে শুধরে নিয়ে বলেন যে, উনি ভারত নয়, বিশ্ব বলতে চেয়েছিলেন।

ইনস্টাগ্র্যামে মিম পোস্ট করে এমন একটি পেজ সম্প্রতি রাহুল গাঁধীকে কটাক্ষ করে ওই সম্পাদিত ভিডিওটি পোস্ট করে। সঙ্গে যে হ্যাশট্যাগ দেওয়া হয়, সেগুলি হল 'বিদ্রুপ', 'মিম, 'হাস্যকর'।

১০ সেকেন্ডের ওই কাটছাঁট করা ভিডিওটির ক্যাপশনে বলা হয়, "অবকি বার, রাহুল সরকার"।

পোস্টটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

আরও পড়ুন: ভাইরাল গোমাংস সহ মেনু কার্ড গোয়ার 'সিলি সোলস্ কাফে অ্যান্ড বার' এর নয়

তথ্য যাচাই

হিন্দিতে রাহুল গাঁধীর ভাষণ শোনার পর বুম প্রাসঙ্গিক কি-ওয়ার্ড দিয়ে সার্চ করে। তার ফলে, ২৮ জানুয়ারি, ২০২০ নিউজ-১৮ রাজস্থান টিভির ইউটিউবে আপলোড করা একটি ভিডিও দেখতে পাই আমরা।

ওই সংবাদ প্রতিবেদনের সঙ্গে দেওয়া হিন্দি ক্যাপশনে বলা হয়, "জয়পুর। হিন্দুস্থানের যুব সমাজ কেবল দেশকে নয়, সারা বিশ্বকে পাল্টাতে পারে – রাহুল গাঁধী।"

(হিন্দিতে লেখা ক্যাপশন: Jaipur। Hindustan का Yuwa देश को नहीं पूरी दुनिया को बदल सकता है- Rahul Gandhi)

ভিডিও প্রতিবেদনটিতে রাহুল গাঁধী নিজেকে শুধরে নেন। ৫২ সেকেন্ডের সময়চিহ্ন থেকে তাঁকে বলতে শোনা যায়, "সারা দেশ, এমনকি সারা বিশ্ব স্বীকার করবে যে, হিন্দুস্থানের যুব সমাজ কেবল হিন্দুস্থান নয়, দেশটাকেও পাল্টে দিতে পারে। সারা বিশ্বকে পাল্টে দিতে পারে, দুঃখিত, দেশ নয়, বিশ্বকে পাল্টে দিতে পারে।"

ভাষণটি ০০.৫২ সেকেন্ড থেকে ১.১১ মিনিট সময়চিহ্ন পর্যন্ত শোনা যাবে।

ভিডিওটি আমরা ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস-এর অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেলেও দেখতে পাই। তাতে রাজস্থানের জয়পুরে আয়োজিত যুব আক্রোশ জনসভায় ভাষণ দিতে দেখা যায় রাহুল গাঁধীকে। ২৮ জানুয়ারি, ২০২০ ভিডিওটি সরাসরি সম্প্রচারিত হয়।

বাদ দেওয়া অংশটি ২৬:২৪ মিনিট থেকে ২৬:৩০ মিনিটের মধ্যে শোনা যায়। সংশোধন সমেত গাঁধীর সম্পূর্ণ ভাষণটি ২৬:১৭ থেকে ২৬:৩৬ মিনিট পর্যন্ত চলে।

আরও পড়ুন: এগুলি কি দ্রৌপদী মুর্মু, নরেন্দ্র মোদী ও একনাথ শিন্ডের তরুণ বয়সের ছবি?

Claim :   রাহুল গান্ধী বলেছেন, হিন্দুস্তানের যুবকরা শুধু হিন্দুস্তানকে বদলাতে পারে না, দেশেও পরিবর্তন আনতে পারে
Claimed By :  Social Media Users
Fact Check :  Misleading
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.