ইউটিউবার নীতীশ রাজপুতকে ভুল করে আইপিএস আধিকারিক বলা হল

বুম দেখে ভিডিওর ব্যক্তি হলেন ভ্লগার ও উদ্যোগপতি নীতীশ রাজপুত, তিনি আইপিএস নন।

বুম দেখে একটি ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে ইউটিউব ব্যবহারকারী নীতীশ রাজপুতকে (Nitish Rajput) আইপিএস অফিসার (IPS Officer) শৈলজাকান্ত মিশ্র (Shailajakant Mishra) বলে দাবি করা হয়েছে। রাজপুত ওই ভিডিওতে বলেছেন, সাংসদ ও বিধায়কদের মধ্যে একটা বড় অংশের বিরুদ্ধে অপরাধে জড়িত থাকার অভিযোগ রয়েছে।

বুম দেখে কন্টেন্ট প্রস্তুতকারক নীতীশ রাজপুত ভিডিওটি জুলাই ২০২০তে আপলোড করেন। রাজপুত একজন উদ্যোগপতি ও লেখক। তিনি চলতি ঘটনার ভিডিও-ও তৈরি করেন। আমরা রাজপুতের টিমের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তাঁরা নিশ্চিত করে জানায় যে রাজপুত আইপিএস অফিসার নন।

লেখক হরিন্দর এস সিক্কার টুইট করা ভিডিওটির ক্যাপশনে লেখা হয়েছে, "সমস্ত দেশবাসীর কাছে অপ্রিয় সত্যটি পৌঁছে দিন। স্বাধীনতার পর থেকে আমরা অপরাধী নেতাদের প্রতি ক্রিতদাসের মতো অনুগত থেকেছি। জরুরি অবস্থা, অপারেশন ব্লু স্টার, ১৯৮৪-তে শিখ হত্যা, গোধরায় হিন্দুদের পুড়িয়ে মারা, দিল্লিতে মদের ওপর ছাড় দিয়ে টাকা রোজকার করা...? দোষটা আমাদের। আমরা নপুংসক, নেতারা নয়।"

(হিন্দিতে লেখা ক্যাপশন: कृपा हर देशवासी तक कड़वा सत्य पहुँचाए। आज़ादी के बाद से हम ग़ुलामों की तरह आपराधिक नेताओं को समर्पित हैं। इमर्जन्सी,ऑपरेशन ब्लूस्टार,1984 में सिखों की हत्या,गोदरा ट्रेन में हिंदुओं को ज़िंदा जलाना,दिल्ली में शराब पर छूट से पैसे कामना…? क़ुसूर हमारा है,हम नपुंसक हैं,नेता नहीं।)

"ইনি হলেন লখনউ পুলিশের আইপিএস অফিসার শৈলজাকান্ত মিশ্র। তাঁর গভীর জ্ঞানের জন্য তাঁকে সেলাম!" — ভিডিওটিকে সম্পাদিত করে এই লিখিত অংশটি ঢোকানো হয়ছে।


পোস্টটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

আরও পড়ুন: কুণাল ঘোষের উপর জনরোষ? বিভ্রান্তিতে ছড়াল ত্রিপুরায় হামলার পুরনো ভিডিও

তথ্য যাচাই

বুম ভিডিওটি যাচাই করার সময় দেখে ভিডিওটির জলছাপে ইউটিউব ব্যবহারকারী 'নীতীশরাজপুতে'-এর নাম। টুইটটির উত্তরে মন্তব্যগুলির মধ্যে আমরা দেখি একটি মন্তব্য নীতীশ রাজপুত নামের যাচাই করা একটি টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে করা হয়েছে। তিনি টুইটটির উত্তরে ভিডিওটির একটি ইউটিউব লিঙ্ক শেয়ার করেন।

জলছাপ ও টুইটের উত্তরের সূত্র ধরে আমরা 'নীতীশরাজপুতে' নামটি দিয়ে সার্চ করি টুইটারে এবং আমরা নীতীশ রাজপুত-এর প্রোফাইল দেখতে পাই।


আমরা লক্ষ করি যে, একজন কনটেন্ট প্রস্তুতকারক, উদ্যোগপতি ও "ব্রোকেন পিলারস অফ ডেমোক্রেসি" বইয়ের লেখক হিসেবে নিজের পরিচয় দেন রাজপুত

আমরা ইনস্টাগ্রামে একই রকমভাবে সার্চ করে দেখতে পাই এই একই ভিডিও ২৬ জুন ২০২০-তে আপলোড করা হয়ছে। ভিডিওটি দেখুন নিচে।

ভিডিওটির ক্যাপশনের একটি অংশে বলা হয়, "অপরাধীরা কী ভাবে নির্বাচনে অংশ নেয়, এই ভিডিওতে আমি সেই কথা বলছি। তারা শুধু অংশই নেয় না, জিতেও যায়। এবং ভারতীয় রাজনীতিতে নিজেদের স্থানও করে নেয়। তারা জেতে কী করে? তারা সিস্টেমের মধ্যে পথ করে নেয় কী ভাবে? লোকে তাদের ভোট দেয় কেন?"

এছাড়া, ইন্ডিয়া টুডে, ডিএনএ আউটলুক-এ প্রকাশিত বেশ কয়েকটি প্রতিবেদনে আমরা দেখতে পাই রাজপুতকে একজন ইউটিউব ব্যবহারকারী ও সক্রিয় ডিজিটাল কর্মী বা অ্যাক্টিভিস্ট বলে বর্ণনা করা হয়ছে।

বুম নীতীশ রাজপুতের টিমের সঙ্গেও যোগাযোগ করে। তাঁরা নিশ্চিত করে বুমকে জানান যে রাজপুত আইপিএস অফিসার নন।

এ ছাড়াও, 'আইপিএস অফিসার শৈলজাকান্ত মিশ্র' কি-ওয়ার্ড দিয়ে সার্চ করলে উত্তরপ্রদেশ ব্রজ তীর্থ বিকাশ পরিষদ-এর (ইউপিবিটিভিপি) ওয়েবসাইট সামনে আসে। সেখানে অবসরপ্রাপ্ত আইপিএস অফিসার শৈলজাকান্ত মিশ্রর ছবি দেখতে পাওয়া যায়। ওই ওয়েবসাইট অনুযায়ী মিশ্র ওই সংস্থাটির সহ-সভাপতি হিসেবে কাজ করছেন।

সহ-সভাপতি শৈলজাকান্ত মিশ্র (ফটো ক্রেটিড: ইউপিবিটিভিপি)

সহ-সভাপতি শৈলজাকান্ত মিশ্র (ফটো ক্রেটিড: ইউপিবিটিভিপি)

১৯৭৭ ব্যাচের আইপিএস অফিসার শৈলজাকান্ত মিশ্রর ওপর অমর উজালায় একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। লেখাটি এখানে পড়ুন এখানে

আরও পড়ুন: ভিডিওটি কি অস্ট্রেলিয়ার বিজ্ঞানীর মহাশূন্য থেকে পৃথিবীর দিকে ঝাঁপ দেওয়া?

Claim :   লখনউ পুলিশ আইপিএস অফিসার শৈলজাকান্ত মিশ্র বলছেন রাজনীতিবিদরা অপরাধ জগতে জড়িত
Claimed By :  Harinder S Sikka
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.