লকডাউনের সময় দীপিকা পাড়ুকোনকে মদ কিনতে দেখা গেল? না, তা ঠিক নয়

ভিডিওটি অভিনেত্রী রাকুল প্রীত সিং-এর, যিনি গত ৫ মে ওষুধ ও অন্যান্য অত্যাবশ্যকীয় জিনিস কিনতে বেরিয়েছিলেন

বান্দ্রা পালি হিল-এর একটি ওষুধ ও অন্যান্য জিনিসের দোকান থেকে বেরিয়ে আসা অভিনেত্রী রাকুল প্রীত সিং-এর একটি ছবিকে নেটিজেনরা ভুল করে দীপিকা পাড়ুকোনের ছবি বলে শনাক্ত করে ভাইরাল করেছেন এই মর্মে যে, লকডাউনের সময় দীপিকা মদ কিনতে বেরিয়েছেন।

মহারাষ্ট্র সরকারের নির্দেশে ৪ মে মদ বিক্রির বিচ্ছিন্ন দোকানগুলি খোলার নির্দেশ দিলেও পরের দিনই সেগুলি বন্ধ করে দেওয়ার আদেশ জারি হয়।

মুম্বইয়ে কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা হু-হু করে বাড়তে থাকার পরিপ্রেক্ষিতে মুম্বই পুরসভা ৬ মে মদের দোকানগুলি বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করে।

বলিউডের আলোকচিত্রী বিরল ভায়ানির দল এই ভিডিওটি তোলে, যাতে রাকুল প্রীতকে ওষুধ ও অন্যান্য জিনিসের দোকান থেকে বেরিয়ে আসতে দেখা যাচ্ছে। ভিডিওটির ক্যাপশনে ব্যঙ্গ করে লেখা হয়েছে: "মুম্বইয়ে মদ কিনছেন দীপিকা পাড়ুকোন...'সামাজিক দূরত্ব' রক্ষা করার শ্রেষ্ঠ দৃষ্টান্ত...চাকর-বাকররা নেই...ড্রাইভার নেই...!"

ভিডিওটির সত্যতা যাচাই করার জন্যে বুম-এর হেল্পলাইন নম্বরেও সেটি পাঠানো হয়েছে।


একই ক্যাপশন সহ ফেসবুকেও ভিডিওটি শেয়ার হয়েছে।

দীপিকা পাড়ুকোনের নয়, রাকুল প্রীত সিং-এর ভিডিও

বুম ফোটোগ্রাফার বিরল ভায়ানির সঙ্গে যোগাযোগ করতে তিনি জানান, তাঁর ছেলেরা ৫ মে সন্ধেবেলা বান্দ্রা পশ্চিমের পালি মার্কেটে এই ছবিটা তোলে—"আমরা যখন ভিডিওটি তুলি তখন রাকুল নিত্যপ্রয়োজনীয় কিছু জিনিস কিনতে বেরিয়েছিল। পালি মার্কেটের ওষুধ-এর দোকান থেকে তিনি বেরিয়ে আসার সময়েই ছবিটা তোলা হয়।" ভিডিওটি ভায়ানির টিক-টকঅ্যাকাউন্টেও দেখতে পাওয়া যাবে।

রাকুল প্রীত একটি টুইটেই তাঁর মদ কিনতে বের হওয়ার জল্পনায় জল ঢেলে দিয়েছেন। বলিউডের একটি সংবাদ ও বাণিজ্যিক তথ্যা সরবরাহের হ্যান্ডেল কে আর কে বক্স-অফিসে তাঁর লকডাউনের সময় বের হওয়া নিয়ে যে জল্পনা করে টুইট করা হয়, তিনি সেটি পুনঃটুইট করেন। কে আর কে বক্স-অফিসের টুইটটির আর্কাইভ করা আছে এখানে

পরে মুছে দেওয়া একটি পোস্টে এই কে আর কে বক্স-অফিসই কিন্তু রাকুল প্রীতকে দীপিকা পাড়ুকোন বলে শনাক্ত করেছিল। নেটিজেনরা এ জন্য টুইটটির নিন্দাও করেন।

তা ছাড়া, বুম এটাও নিশ্চিত করতে পেরেছে যে, রাকুল প্রীত পালি মার্কেটের মডার্ন মেডিকেল অ্যান্ড প্রভিসন্স স্টোর্স থেকেই বের হচ্ছিলেন। নীচে ভিডিওটির একের-পর-এক ফ্রেম তুলনা করা হয়েছে এবং গুগল ম্যাপস থেকে ওষুধের দোকানটির ছবিও পাওয়া গেছে। গুগল ম্যাপস-এ ছবিটি ২০১৭ সালে আপলোড করা হয়।

দুটি ফ্রেমেরই হলুদ বৃত্তের মধ্যে শাদা-সবুজ দোকানের আভাস পাওয়া যাচ্ছে। ওষুধের দোকানের কাছেই ইংরেজি বানানে স্টার ট্রাভেলস লেখা দোকানের ঝাঁপও লাল কালির বৃত্তের মধ্যে দেখতে পাওয়া যাচ্ছে।


Updated On: 2020-05-13T10:34:48+05:30
Claim Review :   ভিডিও দেখায় লকডাউনে দীপিকা পাড়ুকোন মদ কিনছেন
Claimed By :  Facebook Pages & WhatsApp
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story