এটি করোনাভাইরাসে মৃত ইতালির ডাক্তার দম্পতির শেষ চুম্বনের ছবি নয়

বুম যাচাই করে দেখেছে স্পেনের বার্সেলোনা বিমানবন্দরে এক দম্পতির চুম্বন মুহূর্তের ছবি এটি, যা ২০২০’র ১২ মার্চ তোলা হয়েছিল।

সোশাল মিডিয়ায় এক দম্পতির চুম্বন মুহূর্তের ছবি ভুয়ো দাবি সহ ছড়ানো হচ্ছে। ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া ছবিটিকে বলা হচ্ছে এটি ইতালির এক ডাক্তার দম্পতির ছবি। তাঁরা ইতালির অনেক করোনাভাইরাস আক্রান্ত রুগিকে প্রাণ ফিরিয়ে দেওয়ার পর নিজেরা করোনাভাইরাসে সংক্রামিত হন। ছবিটি তাদের শেষচুম্বনের দৃশ্য। এই ঘটনার অব্যবহিত পরে, এক ঘন্টার মধ্যে মারা যান তাঁরা।

ভাইরাল হওয়া ছবিটিতে চুম্বনের প্রাক-মুহূর্তে অন্তরঙ্গ এক দম্পতিকে দেখা যাচ্ছে। তাঁদের দুজনেরই মাস্ক খোলা মুখ দেখা যাচ্ছে।

ফেসবুক পোস্টটির ক্যাপশন লেখা হয়েছে, ''ছবিটি কোনো #ভ্যালেন্টাইন_ডে এর ছবি নয় বন্ধুরা। ছবিটি ইতালির এক বিখ্যাত হসপিটালের ছবি। এই দুইজন হলেন ইতালির প্রথম সারির বিখ্যাত দুই ডক্টর। এরা হলেন স্বামী স্ত্রী ও। এরা 20 দিন ধরে দিন রাত পরিশ্রম করে, ১৩৪ জন #নোভেল_করোনা আক্রান্ত মানুষের প্রাণ বাঁচিয়েছেন। কিন্তু, ঘটনা হল- ঐ ২০ দিনের মধ্যেই ওরা দুই ডাক্তার দম্পতি করনার করালগ্রাসে চলে এসেছেন। মানে ওরাও করোনা আক্রান্ত হয়ে পড়েন। আর মৃত্যু নিশ্চিত জেনে গতকাল ওরা পরস্পর পরস্পরকে ভালোবাসার শেষচুম্বনটুকু করেন। আর তার ঠিক একঘন্টার মধ্যেই দুজনেরেই মৃত্যু ঘটে।
প্রনাম স্যার/ম্যাডাম প্রনাম। আপনাদের পায়ে আমাদের লক্ষকোটি প্রনাম। ফেসবুক থেকে সংগৃহীত।''
পোস্টটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

এই একই বয়ানে ছবিটি ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।


তথ্য যাচাই

বুম রিভার্স সার্চ করে খুঁজে পেয়েছে এটি ইতালির কোনও দম্পতির ছবি নয়। স্পেনের বার্সেলোনা বিমানবন্দরে ২০২০'র ১২ মার্চ ছবিটি তোলা হয়েছিল। ছবিটি তুলেছিলেন ইমেলিও মরেনাতি। এপি ইমেজেস-এ ছবিটি দেখা যাবে এখানে


এপি ইমেজেস-এর ক্যাপশনে লেখা হয়েছে, ''A couple kiss, at the Barcelona airport, Spain, Thursday, March 12, 2020.'' ক্যাপশনে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ইউরোপ থেকে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার কথাও বলা হয়েছে।

ছবিটি আরও দুটি সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে একই দাবি সহ, যা দেখা যাবে এখানেএখানে। ইতালির ডাক্তার দম্পতি ও ভুয়ো পোস্টের অন্যান্য দাবির কথা লেখা নেই ছবিটির ক্যাপশনে।

ইতালিতে কোভিড-১৯ এর সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৫,৪৭৬ জনের। যা চিনে করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যাকে ছাড়িয়ে গেছে। চিনে এপর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ৩,২৭৪ জনের। ( সাম্প্রতিক তথ্য দেখুন জনহপকিন্সে)

আরও পড়ুন: না, এই ছবিগুলি ইতালিতে করোনাভাইরাসে মৃত্যুর সঙ্গে সম্পর্কিত নয়

Claim Review :  ছবির দাবি করোনাভাইরাসে মৃত ডাক্তার দম্পতির শেষচুম্বনের দৃশ্য
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story