গোপন কোড দিয়ে ফোনের ওপর নজরদারি ঠেকানো যায় কি? এই কোড আসলে যা করে

কিছু ভার্টিকাল সার্ভিস কোড ডায়াল করলেই আটকানো যাবে আপনার ফোনের ওপর গোয়েন্দা সংস্থার নজরদারি—ভাইরাল মেসেজে দাবি করা হল এমনটাই।

হোয়াটসঅ্যাপে ভাইরাল হওয়া একটি মেসেজে দাবি করা হয়েছে যে বিভিন্ন সিকিউরিটি এজেন্সি অর্থাৎ গোয়েন্দা সংস্থা সাধারণ মানুষের ফোনে নজরদারি করছে। ওই মেসেজে বেশ কয়েকটি কল ফরওয়ার্ডিং ও কল ডাইভার্টিং সার্ভিস কোড দিয়ে বলা হয়েছে, এগুলি ডায়াল করলেই ফোনকে নজরদারি থেকে সুরক্ষিত রাখা যাবে।

বুমের হেল্পলাইনে হোয়্যাটসঅ্যাপে একটি মেসেজ আসে যাতে দাবি করা হয় যে গ্রাহকের অগোচরে বিভিন্ন ফোনের তথ্য এবং কলের উপর নজরদারি করা হচ্ছে। ফোন লাইন নিরাপদ করার জন্য মেসেজটিতে কিছু পদক্ষেপের কথাও বলা হয়েছে।


নিম্নলিখিত পদক্ষেপগুলির কথা ঐ মেসেজে যে বলা হয়েছে:

  1. ওই মেসেজে বলা হয়েছে *#৬১# ডায়াল করলে জানা যাবে যে লাইনে নজরদারি করা হচ্ছে কিনা। ওই মেসেজে আরও বলা হয়েছে যে এর পর ইউজার সেই কোড ডায়াল করে যদি কল ফরওয়ারডেড মেসেজ পান, তবে বোঝা যায় যে কলটির উপর নজরদারি করা হচ্ছে।
  2. তার পর ঐ মেসেজে বলা হয়েছে ##০০২# ডায়াল করলে ফোনটির ওপর নজরদারি বন্ধ হবে এবং লাইনটি সুরক্ষিত হবে

তথ্য যাচাই

মেসেজটিতে যে ভার্টিকাল সার্ভিস কোডগুলি উল্লেখ করা হয়েছে, বুম সেগুলিকে সার্চ করে দেখে তার সঙ্গে সত্যিই ফোনের ওপর নজরদারি চালানো বা বন্ধ করার কোনও সম্পর্ক আছে কি না। দুনিয়ার সব ফোনেই সার্ভিস কোড বিল্ট-ইন থাকে, অর্থাৎ ফোন কেনার সময়ই সেই নম্বরগুলি ফোনে ভরে দেওয়া থাকে।

মার্কিন কম্পিউটার ম্যাগাজিন পিসিম্যাগ 'আনলক হিডেন ফিচার্স' শীর্ষক একটি প্রতিবেদনে বিভিন্ন সার্ভিস কোড সম্পর্কে আলোচনা করেছে। প্রতিবেদন অনুসারে *#৬১# সার্ভিস কোডটি কোনও ফোনের কল ফরওয়ার্ডিং ব্যবস্থা সম্বন্ধে তথ্য দেয়। কল ফরওয়ার্ডিং একটি পরিষেবা, যার মাধ্যমে গ্রাহক একটি নম্বরে আসা ফোন অন্য কোনও নম্বরে চালান করে দিতে পারেন। এই কোডটি ডায়াল করলে গ্রাহক জানতে পারেন, তার ফোনে এই বিশেষ পরিষেবাটি চালু আছে কি না।


এ কথা উল্লেখ করা প্রয়োজন যে কল ফরওয়ার্ডিং পরিষেবার সঙ্গে ফোনের ওপর নজরদারির কোনও সম্পর্ক নেই— যে কোনও গ্রাহক নিজের ইচ্ছেয় এই পরিষেবা চালু এবং বন্ধ করতে পারেন।

বেলজিয়ামের মোবাইল পরিষেবা সংস্থা প্রক্সিমাস-ও কল ডাইভার্টিং সংক্রান্ত সার্ভিস কোডের একটি তালিকা তৈরি করেছে। এই পরিষেবাটি কল ফরওয়ার্ডিং পরিষেবার মতোই। সংস্থার ওয়েবসাইটে দেওয়া প্রশ্নোত্তর থেকে জানা যায়, ##০০২# সার্ভিস কোডটি নিছকই কল ডাইভার্ট পরিষেবা বন্ধ করার জন্য ব্যবহৃত হয়। গ্রাহক যদি আগে এই পরিষেবা চালু করে থাকেন, তবে এই সার্ভিস কোড ব্যবহার করে তিনি তা বন্ধ করতে পারেন।


অর্থাৎ, এই ভাইরাল মেসেজটিতে যে সার্ভিস কোডগুলি দেওয়া হয়েছে, সেগুলি কল ফরওয়ার্ডিং ও কল ডাইভার্টিং পরিষেবা সংক্রান্ত সাধারণ সার্ভিস কোড, দুনিয়ার সব মোবাইল ফোনেই যা পাওয়া যায়। কেউ আপনার ফোনে নজরদারি করছে কি না, এই সার্ভিস কোড ব্যবহার করে তা জানা যায় না। আপনার ফোনকে নজরদারির হাত খেকে বাঁচানোর ক্ষমতাও এই সার্ভিস কোডগুলির নেই।

গোয়েন্দা সংস্থা আপনার ফোনে নজরদারি করছে, এই কথাটির সঙ্গে এই সার্ভিস কোডগুলির কোনও রকম সম্পর্ক নেই।

Updated On: 2019-12-18T18:04:41+05:30
Claim Review :  *#61# এবং ##002# সার্ভিস কোড দিয়ে তৃতীয় কেউ ফোন মনিটর করলে জানা যাবে ও চিহ্নিত করে যাবে
Claimed By :  Whatsapp
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story