জলমগ্ন কাপড়ের শোরুমের ছবিটি মুম্বইয়ের নয়

বুম দেখে ২০১৯ সালে প্লাবিত হওয়া রেমন্ড শোরুমের ছবিটি বিহারের পাটনার।

প্লাবিত জামাকাপড়ের শোরুমের এক ছবি সম্প্রতি সোশাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। ছবিটি পোস্ট করে মিথ্যে দাবি করা হয় কয়েকদিনের ভারী বর্ষণের পর মুম্বইয়ের বর্তমান অবস্থা দেখা যাচ্ছে ছবিটিতে।

ছবিটিতে পুরুষদের স্যুটের সারি জলে ডুবে থাকতে দেখা যাচ্ছে। ছবিটির ক্যাপশনে বলা হয়েছে, "মুম্বই: সর্বত্র বৃষ্টি আর বৃষ্টি!!"

গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, মুম্বই শহরের বর্ষা ঋতুর গড় বৃষ্টিপাতের ৯০% বৃষ্টি হয়ে যায় ২১ জুলাই। ২২ জুলাই, রত্নগিরি ও রায়গড় জেলায় বন্যাপরিস্থিতি পর্যালোচনা করার জন্য জরুরি মিটিং করেন মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে। ভারী বর্ষণের কারণে, ভারতের আবহাওয়া দফতর ওই দুই জেলায় লাল সংকেত জারি করে।

পোস্টটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন।


একই দাবি সমেত ছবিটি টুইটারেও ভাইরাল হয়েছে।

পোস্টটির আর্কাইভ দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

আরও পড়ুন: কুস্তিতে প্রিয়া মালিকের সোনা জয় ভুল করে ছড়াল টোকিও অলেম্পিক বলে

তথ্য যাচাই

বুম ভাইরাল ছবিটির রিভার্স ইমেজ সার্চ করে। দেখা যায় ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯-এ 'নইদুনিয়া'য় প্রকাশিত লেখার সঙ্গে সেটি ছাপা হয়। প্রতিবেদনটিতে বলা হয় ছবিটিতে বিহারের পাটনার হাথওয়া মার্কেটে একটি রেমন্ড শোরুমের দৃশ্য দেখা যাচ্ছে।

সেই সূত্র ধরে আমরা হিন্দি কি-ওয়ার্ড দিয়ে গুগুলে সার্চ করি। দেখা যায়, ওই একই তথ্য দিয়ে 'নিউজ-১৮ বিহার'ও ছবিটি টুইট করেছে।

৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 'ইন্ডিয়া টুডে'তে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বলা হয়, বিহারে প্রচণ্ড বৃষ্টির পর যে বন্যা দেখা দেয় তাতে ২৯ জন প্রাণ হারান। ভারী বর্ষণের ফলে গঙ্গাসহ অন্যান্য নদীও ফুলে ফেঁপে ওঠে। তার ফলে ট্রেন চলাচল ও বিদ্যুৎ সরবরাহ বিঘ্নিত হয়।

'এবিপি নিউজ হিন্দি'র একটি রিপোর্টেও দেখানো হয় কিভাবে পাটনায় জামাকাপড়ের দোকানগুলি ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

আরও পড়ুন: না, এটি বাঁধের উপর আসল মিগ যুদ্ধ বিমানের অবতরণ নয়

Claim Review :   ছবির দাবি মুম্বইতে প্লাবিত জামাকাপড়ের শোরুম
Claimed By :  Social Media Users
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story