আফগান রাষ্ট্রদূতের মেয়ে বলে ভাইরাল হল পাকিস্তানি টিকটক তারকার ছবি

বুম দেখে ছবিটি পাকিস্তানের রূপান্তরকামী টিকটক তারকা গুল চাহতের, সিলসিলা আলিখিলের নয়।

মুখে গুরুতর আঘাত লেগেছে, এমন এক মহিলার ছবি শেয়ার করে দাবি করা হল যে, ছবিটি পাকিস্তানে (Pakistan) আফগান রাষ্ট্রদূতের (Afganistan Ambassador) কন্যা সিলসিলা আইখিলের (Silsila Alikhil)। তার অপহরণ ও মুক্তির ঘটনায় দুই দেশের মধ্যে সম্পর্ক আরও খারাপ হয়েছে। বুম যাচাই করে দেখে ছবিতে যাকে দেখা যাচ্ছে তিনি গুল চাহত (Gul Chahat) নামে এক রূপান্তরকামী নারী। এর পাশাপাশি তিনি পাকিস্তানে এক জন টিকটক তারকা।

আগফানিস্তানের সরকারি মুখপাত্র দাবি করেন যে, নাজিবুল্লা আইখিলের কন্যা সিলসিলা আলিখিলকে গত ১৬ জুলাই ইসলামাবাদ থেকে অপহরণ করা হয়, এবং কিছু ক্ষণ পরে তাঁকে মুক্তি দেওয়া হয়। সংবাদসংস্থা অ্যাসোসিয়েটেড প্রেস এই অপহরণ ও অ্যাচারের ঘটনার কথা জানায়, এবং বলে যে, তাদের হাতে থাকা মেডিক্যাল রিপোর্ট অনুযায়ী, সিলসিলার মাথায় আঘাত লেগেছে। প্রতিবেদনে জানানো হয়, "রিপোর্টে আরও বলা হয়েছে যে, অপহরণকারীরা তাঁকে পাঁচ ঘণ্টার উপর আটকে রাখে, এবং পরে পুলিশ তাঁকে ইসলামাবাদের একটি হাসপাতালে নিয়ে আসে। কেন অপহরণ করা হল, এবং কী কারণে তাঁকে মুক্তি দেওয়া হল, সে বিষয়ে কোনও বিশদ তথ্য পাওয়া যায়নি।"

১৭ জুলাই আফগানিস্তানের বিদেশ মন্ত্রক একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে ২৭ বছর বয়সী আইখিলের অপহরণের সংবাদটি জানায়, এবং পাকিস্তানে থাকা আফগান মন্ত্রী ও রাষ্ট্রদূতদের, এবং তাঁদের পরিবারের নিরাপত্তা বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে।

আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বিডেন আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনাবাহিনীকে সরিয়ে নেওয়ার ঘোষণা করার পর সে দেশ থেকে আমেরিকান ও ন্যাটো বাহিনী সরিয়ে নেওয়ার প্রক্রিয়া আরম্ভ হতেই আফগানিস্তানে অস্থিরতা ও হিংসাত্মক ঘটনা বাড়তে আরম্ভ করেছে।

তালিবানরা সীমান্তবর্তী পোস্টগুলি দখল করে নিয়েছে। হিংসাত্মক ঘটনা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আফগান সরকার পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সুর চড়িয়েছে। দাবি করেছে যে, পাকিস্তান তালিবানদের আশ্রয় দিচ্ছে, এবং আফগানিস্তানের ক্ষমতা দখল করতে তালিবানদের মদত দিচ্ছে।

গুল চাহতের রক্তাক্ত মুখের ছবিটি শেয়ার করে তার ক্যাপশনে লেখা হয়েছে, "আফগান রাষ্ট্রদূতের কন্যা। তাঁকে ইসলামাবাদের জিন্নাহ সুপার অঞ্চল থেকে অপহরণ করা হয়, এবং ছ'ঘণ্টা অত্যাচার করার পর ইসলামাবাদের ব্লু অঞ্চলের তহজিব বেকারির সামনে ফেলে দেওয়া হয়। মারাত্মক অত্যাচার করা হয়েছে।"


ভারতের দক্ষিণপন্থী ওয়েবসাইট অপইন্ডিয়া আইখিলের অপহরণ সংক্রান্ত প্রতিবেদনে এই ছবিটি ব্যবহার করে।

সিলসিলা আলিখিল বিষয়ক সংবাদ প্রতিবেদনে অপইন্ডিয়া পাকিস্তানি টিকটক তারকা গুল চাহতের ছবি ব্যবহার করে


আর্কাইভ দেখার জন্য এখানে ক্লিক করুন।

আরও পড়ুন: জিও ছাপ ছাতা মাথায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী? ভাইরাল ছবিটি সম্পাদিত

তথ্য যাচাই

আমরা দেখতে পাই যে, ভাইরাল হওয়া টুইটটির উত্তরে অনেকেই জানিয়েছেন, ছবিটি গুল চাহতের। তিনি পাকিস্তানের খাইবার পাখতুনখয়া অঞ্চলের এক জন রূপান্তরকামী টিকটক তারকা। গুল চাহত কিওয়ার্ড দিয়ে ভাইরাল হওয়া ছবিটিকে রিভার্স ইমেজ সার্চ করে আমরা চাহতের ফেসবুক প্রোফাইলের সন্ধান পাই। দেখি যে, চাহত সেখানে এই একই ছবি ১৬ জুলাই আপলোড করেছিলেন।

নিজের আঘাত সম্বন্ধে ফেসবুকে একাধিক ভিডিও পোস্ট করে চাহত দাবি করেন যে, জনৈক শোয়েবের হাতে তিনি প্রহৃত হয়েছেন।

১৬ জুলাই এক ফেসবুক লাইভে চাহত মানুষের কাছে সমর্থন প্রার্থনা করেন।

আমরা চাহত বিষয়ে সার্চ করে ২০২০ সালের ১৪ সেপ্টম্বর পাকিস্তানের সংবাদসংস্থা TheNews.com-এর একটি প্রতিবেদনের সন্ধান পাই। সেই প্রতিবেদনে তাঁর সম্বন্ধে লেখা হয়েছিল যে, তিনি এক জন রূপান্তরকামী নারী, ভিডিও শেয়ারিং সাইট টিকটক-এ জনপ্রিয়। পাকিস্তানে, এবং খাইবার অঞ্চলে রূপান্তরকামী মানুষদের উপর আক্রমণের ঘটনা বৃদ্ধি পেয়েছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়।

সিলসিলা আইখিলের ছবি সার্চ করতে গিয়ে আমরা তাঁর বাবা নাজিবুল্লা আইখিলের একটি টুইটের সন্ধান পাই। সেখানে তিনি নিজের কন্যার একটি ছবি শেয়ার করেছেন, এবং উল্লেখ করেছেন যে সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভুল ছবিকে সিলসিলার ছবি বলে দাবি করা হয়েছে। টুইটে নাজিবুল্লা লেখেন, "আমার কন্যা সিলসিলা আইখিলের একটি ছবি পোস্ট করতে বাধ্য হলাম, কারণ অন্য কারও ছবিকে ভুল ভাবে তার ছবি বলে সোশ্যাল মিডিয়ায় দাবি করা হচ্ছে। সেই ছবিটি যাঁর, আমি তাকে একেবারেই চিনি না। ধন্যবাদ।"

আরও পড়ুন: ভারতের অটল টানেলের দৃশ্য বলে ফের ভাইরাল ক্যালিফোর্নিয়ার টানেলের ছবি

Updated On: 2021-07-23T15:33:21+05:30
Claim Review :   ছবিটি পাকিস্তানে আফগান রাষ্ট্রদূতের অপহৃত ও প্রহৃত মেয়ে সিলসিলা আলিখিলের
Claimed By :  OpIndia, Social Media Users
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story