পুরনো ছবি চালানো হল এমকে স্ট্যালিনের মেয়ের বাড়ি আয়কর হানা বলে

বুম দেখে টাকা ও সোনার ভাইরাল ছবিগুলি পুরনো ও স্ট্যালিনের মেয়ের বাড়ি আয়কর দফতরের তল্লাশির সঙ্গে সম্পর্কহীন।

গচ্ছিত টাকা ও সোনার একগুচ্ছ পুরনো ও সম্পর্কহীন ছবি এই দাবি সমেত শেয়ার করা হচ্ছে যে, দ্রাবিড় মুনেত্রা কাজাগম (ডিএমকে) (DMK) পার্টির নেতা এমকে স্ট্যালিনের (MK Stalin) মেয়ের বাড়িতে এক সাম্প্রতিক আয়কর (Income Tax Raid) হানায় সেগুলি পাওয়া গেছে। ২ এপ্রিল ২০২১-এ ওই হানা চালানো হয়।

ডিএমকে প্রধান এমকে স্ট্যালিনের কন্যা সেন্থামারাল সহ আরও কিছু ডিএমকে নেতার বাড়িতে আয়কর দফতরের হানার পরিপ্রেক্ষিতে ছবিগুলি শেয়ার করা হচ্ছে। 'ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস'র প্রতিবেদনে বলা হয়, যে ২৮টি বাড়িতে আয়কর দফতর হানা দেয়, তার মধ্যে চারটি হল সেন্থামারাল ও তাঁর স্বামী সবরীসানের সম্পত্তি। ৬ এপ্রিল ২০২১-এ, তামিলনাডুতে বিধানসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

তামিলে লেখা ক্যাপশন বাংলা করলে দাঁড়ায়: "ডিএমকে নেতা স্ট্যালিনের মেয়ের বাড়িতে আয়কর হানায় বাজেয়াপ্ত টাকার একটা অংশ!!!"

পোস্টটি দেখা যাবে এখানে। পোস্টটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

(মূল তামিল ভাষায় - திமுக தலைவர் ஸ்டாலின் மகள் செந்தாமரை சபரீசன் வீட்டில் , வருமானவரித்துறை நடத்திய சோதனையின்போது கைப்பற்றப்பட்ட பணத்தின் ஒரு பகுதி ! இது பள்ளி நடத்தியதில் வந்ததுனு உருட்டாதீங்க ...)

পোস্টটি দেখার জন্য ক্লিক করুন এখানে। পোস্টটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

যাচাইরের জন্য ভাইরাল ছবিগুলি বুমের হোয়াটসঅ্যাপ হেল্পলাইন নম্বরেও আসে (৭৭০০৯০৬১১১)।

আরও পড়ুন: উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী আদিত্যনাথের মুখে অশালীন কথা? একটি তথ্যযাচাই

তথ্য যাচাই

বুম দেখে, টাকা ও সোনার ভাইরাল ছবিগুলি পুরনো আয়কর হানা থেকে নেওয়া। সেগুলির সঙ্গে এখনকার হানার কোনও সম্পর্ক নেই।

৩ এপ্রিল ২০২১, 'এনডিটিভি' জানায় যে, এমকে স্ট্যালিনের মেয়ে ও জামাইয়ের বাড়িতে সারাদিন তল্লাশি চালিয়ে আয়কর দফতর ১.৩৬ লক্ষ টাকা পায়। সূত্রকে উদ্ধৃত করে চ্যানেলটি আরও বলে যে, রাজ্যে আরও চার জায়গায় তল্লাশি চালানো হলেও, আর কিছু বাজেয়াপ্ত করা হয়নি। সূত্রের কথা অনুযায়ী, যে টাকা পাওয়া গিয়েছিল, তা ফেরতও দিয়ে দেওয়া হয়। এনডিটিভি আরও জানায় যে, পরিবারের সদস্যরা হিসেব দিয়ে প্রমাণ করে দেন, কী কী সাংসারিক খরচ মেটানোর জন্য ওই টাকা রাখা হয়েছিল।

প্রথম ছবি

বুম দেখে ছবিটি তেলঙ্গানার খাম্মামে তোলা। ২ নভেম্বর ২০১৯-এ, তেলঙ্গানা পুলিশ পাঁচজনের একটি দলকে আটক করে। তাদের কাছ থেকে ৬ কোটি টাকার জাল ভারতীয় মুদ্রা বাজেয়াপ্ত করা হলে, ছবিটি তোলা হয়।

ওই ঘটনা সম্পর্কে আমরা কয়েকটি সংবাদ প্রতিবেদন ও সংবাদ সংস্থা এএনআই-এর করা একটি টুইটও দেখতে পাই।

দ্বিতীয় ও তৃতীয় ছবি

আমরা ছবিগুলির রিভার্স ইমেজ সার্চ করি। দেখা যায়, সেগুলি ১৯ মার্চ ২০১৯-এর একটি আয়কর হানা সংক্রান্ত। পিটিআই-এর প্রতিবেদনে বলা হয়, আনুমানিক কয়েক কোটি টাকা একটি সিমেন্টের গুদাম থেকে উদ্ধার করা হয়। ওই গোডাউনের মালিক, ভেলোর জেলার এক ডিএমকে নেতার ঘনিষ্ট বলে জানা যায়।

চতুর্থ ছবি

বুম দেখে, এই ছবিটি এমকে স্ট্যালিনের মেয়ের বাড়িতে ২ এপ্রিল ২০২১-এ আয়কর তল্লাশি চলাকালে তোলা। ওই ঘটনার ওপর প্রকাশিত প্রতিবেদনেও আমরা ওই একই জায়গা থেকে তোলা ছবি দেখতে পাই।

এই প্রতিবেদনের ১২ সেকেন্ড সময়ে আমরা ওই একই দৃশ্য দেখতে পাই।

ছবি

বুম দেখে সোনা ও টাকার এই ভাইরাল ছবিগুলি জুলাই ২০১৮ তে তোলা হয়। সেই সময়, তামিলনাডুর চেন্নাইতে এসপিকে কম্পানি নামের এক সংস্থায় তল্লাশি চালানো হয়।

১৭ জুলাই ২০১৮-য় 'আউটলুক' তাদের প্রতিবেদনে জানায় যে, ওই রাস্তা নির্মাণ কম্পানির একাধিক বাড়িতে হানা দিয়ে, আয়কর দফতর ১৬৩ কোটি টাকা ও ১০০ কেজি সোনা বাজেয়াপ্ত করে।

সপ্তম ছবি

বুম দেখে যে, টাকা আর অলঙ্কারের এই ছবিটি ডিসেম্বর ২০১৬-র। ১১ ডিসেম্বর ২০১৬-য়, 'ডেকান হেরাল্ড'-এ প্রকাশিত রিপোর্ট থেকে জানা যায় যে, কর্ণাটক আর গোয়ায়, ক্যাসিনো মালিক, হাওয়ালা ব্যবসায়ী ও ক্রিকেট বেটিংয়ের সঙ্গে জড়িতদের বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে আয়কর দফতর সেগুলি বাজেপ্ত করে।

অষ্টম ছবি

বুম বেশ কয়েকেটি সংবাদ প্রতিবেদন দেখে, যেখানে বলা হয় ছবিটি হল স্ট্যালিনের জামাইয়ের কাছ থেকে বাজেয়াপ্ত করা টাকার রশিদ। তবে এই নথির সত্যতা বুম নিজস্ব উপায়ে যাচাই করতে পারেনি।

পড়ুন এখানে

আমরা ওই একই রশিদ এনডিটিভির প্রতিবেদনের ১.৩৬ সময়চিহ্নতেও দেখতে পাই।

Updated On: 2021-04-07T11:22:26+05:30
Claim Review :   ছবির দাবি আয়কর হানায় নোট ও সোনা উদ্ধার এম কে স্ট্যালিনের মেয়ের বাড়ির থেকে
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story