হিজাব বিতর্ক: মিথ্যে দাবিতে ছড়াল ছেলেদের গেরুয়া পাগড়ি ফেরানোর ভিডিও

৮ ফেব্রুয়ারি বুমের তোলা ভিডিও দেখায় দক্ষিণপন্থী হিন্দুত্ববাদী গোষ্ঠীর দেওয়া গেরুয়া পাগড়ি ফেরাচ্ছে এমজিএম কলেজ ছাত্ররা।

মুসলমান মেয়েদের হিজাব পরার (Hijab row) বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করার পর, কর্নাটকের (Udupi) উদুপিতে মহাত্মা গাঁধী মেমোরিয়াল (এমজিএম) কলেজ-এর ছাত্ররা তাঁদের গেরুয়া পাগড়ি ফেরত দিচ্ছেন। এই রকম একটি ভিডিও এই মিথ্যে দাবি সমেত শেয়ার করা হচ্ছে যে, শিবমোগায়,(Shivamogga) হিন্দু (Hindus) ছাত্রদের বেশে, মুসলমান (Muslims) ছেলেরা পাথর ছোঁড়ে।

কিন্তু আসল ভিডিওটি তোলেন বুমের দক্ষিণ ভারতের বার্তা সম্পাদক নিবেদিতা নিরঞ্জনকুমার। ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২২ সংগঠিত প্রতিবাদের ঘটনা তিনি রিপোর্ট করেছিলেন ঘটনাস্থল থেকেই।

এমজিএম কলেজে বিক্ষোভ প্রদর্শনের পর ওই ঘটনা সংক্রান্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করে বুম। সেখানে হিন্দু জাগরণ ভেদিকে (Hindu Jagrana Vedike) নামের এক সংগঠনের বিতরণ করা গেরুয়া পাগড়িগুলি ফেরত দিচ্ছিল ছাত্ররা।

কর্নাটকের শিভামোগা সাম্প্রদায়িক ভাবে সংবেদনশীল জায়গা। হিজাব বিতর্ককে কেন্দ্র করে, শিক্ষা কেন্দ্রে মেয়েদের হিজাব পরার প্রতিবাদে ছাত্ররা গেরুয়া শাল গায়ে বিক্ষোভ দেখালে, গতকাল সেখানে সংঘর্ষ বেধে যায়। পরের একটি ঘটনায়, শিভামোগ্গার গভর্নমেন্ট ফার্স্ট গ্রেড কলেজ-এর মাঠে, এক দল ছেলে পতাকা দণ্ডে গেরুয়া পতাকা লাগিয়ে দেয়। এবং সেখানে ব্যাপক পাথর ছোঁড়ার ঘটনা ঘটে।

কন্নড় ভাষায় লেখা ক্যাপশন সমেত ভিডিওটি শেয়ার করা হচ্ছে। ক্যাপশনটিতে বলা হয়েছে, "মুসলমান ছেলেরা, হিন্দু ছেলেদের মতো গেরুয়া পোশাক ও শাল পরে. পাথর ছোঁড়ে ও কাঁচ ভাঙ্গে।"


ভিডিওটি দেখুন এখানে

(কন্নড় ভাষায় মূল ক্যাপশন: ಶಿವಮೊಗ್ಗಾದಲ್ಲಿ ಮುಸ್ಲಿಂ ಹುಡುಗರು ಕೇಸರಿ ಪೇಟ, ಶಾಲು ಧರಿಸಿ, ಕಲ್ಲುತೂರಾಟ, ಗಾಜು ಒಡೆಯುವುದು ಇತ್ಯಾದಿ ಕಿಡಿಗೇಡಿ ತನಮಾಡಿ ಹಿಂದು ಹುಡುಗರ ತಲೆಗೆ ಕಟ್ಟುವ ಕೆಲಸ ಮಾಡಿದ್ದಾರೆ.)

ওই মিথ্যে দাবি সমেত ভিডিওটি ফেসবুকেও শেয়ার করা হচ্ছে।


তথ্য যাচাই

উদুপি জেলায়, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মুসলমান মেয়েদের হিজাব পরার প্রতিবাদে কিছু দক্ষিণপন্থী গোষ্ঠী যে পাল্টা বিক্ষোভ দেখাচ্ছিল, বুম সেই প্রতিবাদ সরাসরি প্রত্যক্ষ করে। দেখা যায় কিছু ছেলে মেয়ে, তাদের কলেজের ইউনিফর্ম বা পোশাকের ওপর গেরুয়া স্কার্ফ ও পাগড়ি লাগিয়েছে।ও কলেজে ঢোকার সময় 'জয় শ্রীরাম' স্লোগান দিচ্ছে।

ভাইরাল ভিডিওটি শিভামোগ্গার নয়, যদিও তেমনটাই দাবি করা হচ্ছে। বাস্তবে, সেটি ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২২, উদুপির মহাত্মা গাঁধী মেমোরিয়াল (এমজিএম) কলেজ-এ তোলা। বুমের দক্ষিণ ভারতের বার্তা সম্পাদক নিবেদিতা নিরঞ্জনকুমার সেটি তোলেন। উনি ঘটনাস্থল থেকে সরাসরি রিপোর্ট করছিলেন।

বিক্ষোভ দেখানোর জন্য হিন্দু জাগরণ বেদিকের দেওয়া গেরুয়া পাগড়িগুলি ফেরত দিচ্ছিল ছাত্ররা। বুমের প্রতিবেদনে ওই ঘটনার কথা বলা হয়। আসল ভিডিওটি নীচে দেখা যাবে।

এ বিষয়ে, ঘটনাস্থল থেকে বুমের সরাসরি প্রতিবেদনগুলি নীচের টুইটার থ্রেডটিতে দেখুন।

Claim :   শিবমোগায় মুসলিম ছেলেরা গেরুয়া পাগড়ি ও উত্তরীয় পরছে পাথর ছুঁড়বে বলে
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.