পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী চরণজিৎ সিংহ চন্নির খ্রিস্টধর্ম দীক্ষার দৃশ্য নয়

বুম দেখে ভিডিওর ওই ব্যক্তি পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী চরণজিৎ সিংহ চন্নি নন। তিনি হলেন সিমরানজিৎ সিংহ নামের অন্য এক ব্যক্তি।

শিখদের পাগড়ি পরা এক ব্যক্তিকে খ্রিস্টধর্মে দীক্ষিত হতে দেখা যাচ্ছে এরকম একটি ভিডিওটি মিথ্যে দাবি সমেত ভাইরাল হয়েছে যে তিনি হলেন পাঞ্জাবের (Punjab) মুখ্যমন্ত্রী চরণজিৎ সিংহ চন্নি (Charanjit Singh Channi)।

কংগ্রেস নেতা চরণজিৎ সিংহ সেপ্টেম্বরে পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী হন। নবজ্যোৎ সিংহ সিধুর সঙ্গে এক তিক্ত বিবাদের পর আগের মুখ্যমন্ত্রী অমরেন্দ্র সিংহ পদত্যাগ করলে, চন্নি তাঁর স্থলাভিষিক্ত হন। পাঞ্জাবে আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনের কয়েক মাস আগেই অমরেন্দ্র সিংহ পদত্যাগ করেন। চন্নি সিধুর ঘনিষ্ট বলেই পরিচিত। কংগ্রেসের নির্বাচনী প্রতিশ্রুতিগুলি পালন না-করার অভিযোগ এনে চন্নি অমরেন্দ্র সিংহের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ করেন।

ভিডিওটি এই মিথ্যে দাবি সমেত শেয়ার করা হচ্ছে যে, পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী খ্রিস্টান ধর্ম গ্রহণ করেছেন। ক্যাপশনে বলা হয়েছে, "পাঞ্জাবের সিএম চরণজিৎকে ব্যাপটাইজ করা হচ্ছে। উনি কেবল একজন দলিতই নন, একজন খ্রিস্টানও। সম্ভবত পাঞ্জাবের একমাত্র খ্রিস্টান মুখ্যমন্ত্রী।"

ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া ভিডিও

বুম দেখে ফেসবুকে ভিডিওটি একই দাবি সহ ভাইরাল হয়েছে।


তথ্য যাচাই

বুম দেখে ভিডিওতে যাঁকে দেখা যাচ্ছে তিনি পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী চরণজিৎ সিংহ চন্নি নন। ওই ব্যক্তিকে সিমরানজিৎ সিংহ বলে শনাক্ত করা হয়।

ভিডিওটির ১০ সেকেন্ডের মাথায়, পাদ্রিকে বলতে শোনা যায়, "যাঁরা বিশ্বাস করেন তাঁদের ব্যাপটাইজ করার জন্য আমি সিমরানজিৎকে স্যামুয়েল হিসেবে..."

তাছাড়া ভিডিওটির ওই ব্যক্তির সঙ্গে চন্নির ছবি মেলালে, তাঁদের মধ্যে কোনও মিল খুঁজে পাওয়া যায় না।


চরণজিৎ সিংহ চন্নি হলেন পাঞ্জাবের প্রথম নির্বাচিত দলিত মুখ্যমন্ত্রী। একাধিক দক্ষিণপন্থী পেজে দাবি করা হয়েছে যে, চন্নি খ্রিস্টান ধর্ম পালন করেন। পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রীর ধর্ম সম্পর্কে দাবিটি বুম নিজস্ব উপায়ে যাচাই করে দেখতে পারেনি।

আরও পড়ুন: সুইডেনের কার্টুন শিল্পীর মৃত্যুতে জুড়ল ২০১৪ সালের অগ্নিদ্বগ্ধ গাড়ি

Claim Review :   পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী চরণজিৎ সিংহ চন্নির খ্রিস্টধর্ম দীক্ষার দৃশ্য
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story