আইএসআইএস-এর ভাঙা ধর্মীয়স্থানের ছবি ছড়াল ইজরায়েল মসজিদ ভাঙল বলে

বুম দেখে মূল ভিডিওটিতে ২০১৪ আইএসআইএস দ্বারা সিরিয়ার রাক্কায় উওয়াইস আল-কারানি পবিত্রস্থান উড়িয়ে দেওয়ার দৃশ্য দেখা যাচ্ছে।

২০১৪ সালে সিরিয়ায় এক ঐতিহ্যবাহী ইসলামিক মাজার জঙ্গি গোষ্ঠী আইএসআইএস দ্বারা ভেঙে দেওয়ার দৃশ্য-কে সোশাল মিডিয়ায় ভাইরাল করা হচ্ছে প্যালেস্তাইন (Israel Palestine Conflicts) ইজরায়েল সংঘাতের সঙ্গে।

১৭ সেকেন্ডের ক্লিপটিতে একটি ইসলামি কবিতা জুড়ে দেওয়া হয়েছে এবং ওই পবিত্রস্থানটির ওপরে একটি বিমানহানার দৃশ্যও দেখানো হয়েছে। এই মে তে ইজরায়েল ও প্যালেস্টাইনের মধ্যে সংঘর্ষ তীব্র আকার ধারণ করে। ১০ মে, আল-আকসা মসজিদে ইজরায়েলি বাহিনী হানা দিলে, হামাস ইজরায়েলের ওপর ক্ষেপণাস্ত্রের সাহায্যে আক্রমণ চালাতে থাকে। খবরে প্রকাশ, দুই তরফই আকাশ পথে হামলা চালানোর ফলে, ২১৯ জন প্রাণ হারিয়েছেন।

ভিডিওটি দেখতে ক্লিক করুন এখানে। ভিডিওটি আর্কাইভ করা আছে এখানে


ভিডিওটির আর্কাইভ করা আছে এখানে

ভিডিওটি টুইটারেও শেয়ার করা হচ্ছে।

টুইটটির আর্কাইভ করা আছে এখানে

আরও পড়ুন: প্যালেস্তাইন নয়, ধ্বংসস্তূপে হেঁটে যাওয়া দুই বালক-বালিকা ছবিটি সিরিয়ার

তথ্য যাচাই

ভাইরাল ভিডিওটির কয়েকটি প্রধান ফ্রেম নিয়ে আমরা রিভার্স ইমেজ সার্চ করি। তার ফল, ৮ জুন ২০১৪ ইউটিউবে আপলোড করা ওই ভিডিওটিরই একটি দীর্ঘ রূপ আমরা দেখতে পাই। সেটির শিরোনাম ছিল এই রকম: "আইএসআইএস উওয়াইস আল-কারানি পবিত্রস্থানটি ভেঙ্গে দিয়েছে।" ভিডিওটি ১ মিনিট ১২ সেকেন্ড থেকে ১ মিনিট ১৫ সেকেন্ডের মধ্যে সেখানে একটি বিস্ফোরণ হতে দেখা যায়।

তুরস্কের একটি ওয়েবসাইটে ২০১৪ সালের জুন মাসে প্রকাশিত একটি লেখায় ওই একই ভিডিও ব্যবহার করা হয়। "তুরস্ক-সমর্থিত সন্ত্রাসবাদীরা, যারা ইসলামের শত্রু, তারা উওয়াইস কারানি পবিত্রস্থানটি উড়িয়ে দিয়েছে।"

অ্যারিজোনা স্টেট ইউনিভার্সিটির 'সেন্টার ফর স্ট্র্যাটেজিক কমিউনিকেশনও একটি রিপোর্ট প্রকাশ করে। 'সিরিয়ার রাক্কায় উওয়াইস ধর্মস্থানের ধ্বংস' – এই নামে মে ২০১৪'য় প্রকাশিত রিপোর্টে সিরিয়ার উওয়াইস আল-কারানি পবিত্রস্থান ধ্বংস সংক্রান্ত একটি টুইট ছিল তাতে।

২০১৫ সালে রাষ্ট্রসঙ্ঘের 'ইনস্টিটিউট ফর ট্রেনিং অ্যান্ড রিসার্চ', 'সিরিয়া ওয়ার্ল্ড হেরিটেজ সাইট' নামের একটি রিপোর্ট প্রকাশ করে। তাতে উওয়াইস আল-কারানি ও আম্মার ইবন ইয়াসির, এই দুই পবিত্রস্থানের স্থাপত্যের তুলনা করা হয়। আইএসআইএস এই দুটিরই ক্ষতি করে। ওই দুই পবিত্রস্থানে সিফ্ফিন যুদ্ধের (৬৫৭ খ্রীস্টাব্দ) দুই শহিদের সমাধি আছে। বিবিসি ডাব্লিউএসজে-এর প্রতিবেদনে বলা হয়, "উত্তরের শহর রাক্কায় এক পবিত্রস্থানে তিনটি সমাধি ও সেগুলি মিনার ভেঙ্গে দেওয়া হয়েছে।"

ভাইরাল ভিডিও ও ১২ অক্টোবর ২০১১ আকাশ থেকে তোলা ওই স্থাপত্যের ছবি তুলনা করা হয়েছে নিচে।

২০১৫ সালে 'দ্য মিন্ট' 'আইএসআইএস দ্বারা ধ্বংসপ্রাপ্ত ৫ প্রাচীন স্থাপত্য' নামে একটি ইউটিউব সংকলন তৈরি করে। ভিডিওটির ১.৫৫ সময়চিহ্নে উওয়াইস আল-কারানিতে একটি বিস্ফোরণ হতে দেখা যায়।

Updated On: 2021-05-25T11:48:02+05:30
Claim Review :   ইজরায়েল বোম নিক্ষেপ করল মসজিদে
Claimed By :  Facebook Posts & Twitter Users
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story