ওবামাদের কি বিবাহ বিচ্ছেদ হচ্ছে? ব্যঙ্গাত্মক লেখা ভাইরাল হল

ব্যঙ্গ রচনার ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা ও তাঁর স্ত্রীর মধ্যে বিবাহ বিচ্ছেদের গল্প আবার জিইয়ে উঠল।

একটি লেখায় বলা হয়েছে যে, বারাক ও মিশেল ওবামা বিবাহ বিচ্ছেদের জন্য আবেদন করেছেন। বারাক ওবামা নিজেকে সমকামী বলে স্বীকার করার পরই, দম্পতি ওই পদক্ষেপ নিয়েছে। কিন্তু দাবিটি মিথ্যে এবং একটি ব্যঙ্গ-কৌতুকের ওয়েবসাইট ওই ধারণার উৎস।

ব্যঙ্গ রচনার ওয়েবসাইট 'এস্পায়ার নিউজ' ১৮ জানুয়ারি ২০২০ ওই লেখাটি প্রকাশ করে। তার ফলে ওবামাদের বিবাহ বিচ্ছেদের যে গুজব এক বছর ধরে নানা মহলে শোনা যাচ্ছিল তা আবার নতুন করে চালু হয়।

লেখাটির শিরোনাম হল: 'আমি সমকামী', বারাক ওবামার এই চাঞ্চল্যকর স্বীকারোক্তির পর মিশেল ওবামা ডিভোর্সের জন্য আবেদন করেছেন। লেখাটি ওই ওয়েবসাইটের হোমপেজে রয়েছে।

ওই ওয়েবসাইটে কেবলমাত্র বিনোদনের জন্য লেখা প্রকাশ করা হয়ে থাকে। তার মধ্যে অনেক লেখা তারকা অথবা খ্যাতনামা ব্যক্তিদের নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক রচনা। ওবামাদের নিয়ে লেখাটির একটি অংশ এই রকম: "প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা গত রাত্রে ঘোষণা করেন যে, তিনি তাঁর ২৭ বছরের বিবাহিত স্ত্রী মিশেল ওবামার থেকে ডিভোর্সের জন্য আবেদন করেছেন। নিজের সমকামিতার কথা স্বীকার করার পর উনি ওই সিদ্ধান্ত নেন।"

প্রাক্তন প্রেসিডেন্টের একটি ভুয়ো উদ্ধৃতিও দেওয়া হয়েছে ওই প্রহসনে। ওবামা নাকি বলেন, "কিছুটা বেদনা আর অনেকটা স্বস্তির সঙ্গে আমি জানাচ্ছি যে, আমি আর মিশেল আলাদা হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমি তাঁর কাছে স্বীকার করেছি, এবং এখন আমি সারা দুনিয়ার কাছে স্বীকার করছি যে, আমি সমকামী।"

সোশাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা আগের মতো এবারও ওই গল্প বিশ্বাস করে বসেন।

পোস্টটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

টুইটটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

এমনকি অনেক টুইটার ব্যবহারকারী এম্পায়ার নিউজের পুরো লেখাটা যাতে পড়া যায় তার জন্য লিঙ্কও দিয়ে দেন। টুইটটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন। টুইটটি আর্কাইভ করা আছে এখানে

বুম নিশ্চতভাবে জেনেছে যে, লেখাটি ভাইরাল হওয়ায় এম্পায়ার নিউজ বেশ বিব্রত বোধ করছে। সেই জন্য তারা একটি বিশেষ ঘোষণায় জানিয়েছে যে, লেখাটি একান্তই মজা করার জন্য প্রকাশ করা হয়। তারা আরও বলে যে, বিখ্যাত ব্যক্তিদের নিয়ে তাদের লেখাগুলি কেবলমাত্র ব্যঙ্গাত্মক ও প্যারডি ধরনের।


ওই ওয়েবসাইটের 'অ্যাবাউট' বিভাগে প্রকাশিত বক্তব্যে বলা হয়েছে, "এম্পায়ার নিউজ নিছকই বিনোদনের জন্য। আমাদের ওয়েবসাইট ও সোশাল মিডিয়ায় একমাত্র বিখ্যাত ব্যক্তি ও তারকাদের নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক প্যারডিগুলি ছাড়া অন্য সব লেখার চরিত্রই কাল্পনিক। অন্যথায় আসল নামের ব্যবহার ভুল করে বা কাকতালীয় ভাবে হয়ে থাকে।"

আরও পড়ুন: শিবসেনার নতুন "ধর্মনিরপেক্ষ" প্রতীক? ভাইরাল হল ব্যঙ্গাত্মক ছবি

আরও পড়ুন: আইসল্যান্ড কি ধর্মকে মানসিক অসুখ ঘোষণা করেছে?

ওই ওয়েবসাইটে রাজনৈতিক নেতাদের নিয়ে এবং সাম্প্রতিক ঘটনা সম্পর্কিত প্রহসন প্রকাশিত হয়। যেমন, 'ব্রেকিং: নিউ ইয়র্কে ট্রাম্প টাওয়ার ছাড়ার সময় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প গ্রেপ্তার' বা 'করোনাভাইরাসের আতঙ্কের ফলে সংবাদ মাধ্যমে ওই নাম ঘিরে বিরুপ প্রচার হওয়ায় চিনের বিরুদ্ধে মামলা করেছে করোনা বিয়ারের আসল মালিক'।

প্রহসনকে অনেক সময় আসল খবর বলে ভুল করা হয়। দুয়ের মধ্যে পার্থক্য বুঝতে, কমেডিয়ান কুনাল কামরা ও ব্যঙ্গচিত্র শিল্পী জর্জ মাথেনের সঙ্গে বুমের পডকাস্ট শুনুন।

Updated On: 2020-02-12T19:21:12+05:30
Claim Review :   মিশেল ওবামা বারাকের থেকে বিবাহ বিচ্ছেদ চেয়েছেন সমকামী বলে
Claimed By :  Social Media Users
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story