আমপান তাণ্ডব পর্যবেক্ষণে আসা নরেন্দ্র মোদীকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কী অভ্যর্থনা করেননি?

বুম একটি দীর্ঘ ভিডিও ক্লিপ পেয়েছে, যেখানে মমতাকে সফরে আসা প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা করতে দেখা যাচ্ছে।

আকাশপথে আমপান ঘূর্ণিঝড়ের ধবংসলীলা সরেজমিনে যৌথভাবে প্রত্যক্ষ করার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ২২ মে পশ্চিমবঙ্গে এলে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁকে অভ্যর্থনা করেন কিনা, তা নিয়ে একটি ভুল ভিডিও প্রতিবেদন প্রচার করা হচ্ছে। ভিডিওটিতে দেখানো হয়েছে, মোদী বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ এবং রাজ্য মহিলা মোর্চার সভানেত্রী লকেট চ্যাটার্জির সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করছেন, কিন্তু মমতা ব্যানার্জি যেন প্রধানমন্ত্রীকে উপেক্ষা করছেন। ভিডিওতে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়কেও উপস্থিত দেখা যাচ্ছে।

ভিডিওটির ক্যাপশন দেওয়া হয়েছে তামিল ভাষায়, যার অনুবাদ করলে দাঁড়ায়ঃ "তোমার জন্যে কোনও সম্বর্ধনা নেই...তুমি যত তাড়াতাড়ি কেটে পড়ো, ততই ভাল—মমতা"

ভিডিওটির আর্কাইভ বয়ান দেখতে পাবেন এখানে। ভিডিওটির একটি স্ক্রিনশট নীচে দেওয়া হলো।

একই দৃশ্যের একটি ছবি দিয়েও উপেক্ষার গল্পটি চাউর করা হয়েছে।

সেই ছবিটিতে দেখা যাচ্ছে, প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় দুই হাত সামনে জড়ো করে রয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী একই ভঙ্গিতে জোড় হাত করে প্রতি-নমস্কার জানাচ্ছেন, কিন্তু মমতা ব্যানার্জি হাতে এক গোছা কাগজ নিয়ে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। দাবি করা হচ্ছে, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী কলকাতা বিমানবন্দরে অবতরণ করলে মমতা তাঁকে স্বাগত জানাতে অস্বীকার করেন।

ছবিটি ভাইরাল করা হয়েছে আরও একটি ছবির সঙ্গে, যেটাতে ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েককে দেখা যাচ্ছে হাত জোড় করে প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা করতে। দুটি ছবি পাশাপাশি রেখে বলা হচ্ছে, ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী যেখানে রাজনৈতিক সৌজন্য দেখাচ্ছেন, মমতা ব্যানার্জির তরফে সেখানে সেই সৌজন্যের লেশমাত্র নেই।

পোস্টটি দেখতে এখানে এবং তার আর্কাইভ সংস্করণ দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

প্রধানমন্ত্রী মোদী শুক্রবার আম্ফান-কবলিত এলাকাগুলো ঘুরে দেখেন। রাজ্যপাল ধনখড় এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকে সঙ্গে নিয়ে তিনি দুর্গত এলাকা সফর করেন, তারপর বসিরহাটে একটি প্রশাসনিক বৈঠক হয়, যেখানে তিনি ১০০০ কোটি টাকা অন্তর্বর্তী ত্রাণসাহায্য মঞ্জুর করার কথা ঘোষণা করেন। এর পর প্রধানমন্ত্রী ওড়িশাতেও যান এবং সেখানেও মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েকের সঙ্গে দুর্গত এলাকা আকাশপথে সফর করার পর ৫০০ কোটি টাকার ত্রাণের কথা ঘোষণা করেন।

আরও পড়ুন: নালা থেকে বিড়াল ছানা উদ্ধার করা বালকের ছবি আমপানের সঙ্গে সম্পর্কিত নয়

তথ্য যাচাই

বুম বেশ কয়েকটি ভিডিও পরীক্ষা করে দেখেছে, কোথাওই মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি প্রধানমন্ত্রীকে বিমানবন্দরে অভ্যর্থনা করেননি, এমনটা বলা যাবে না। এএনআই এবং ডিডি নিউজ-এর প্রচার করা ভিডিও প্রতিবেদনে স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে, প্রধানমন্ত্রীকে প্রথমে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় অভ্যর্থনা জানান, যখন উভয়ের মধ্যে শুভেচ্ছা বিনিময় হয়, আর তার পরেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিও হাত জোড় করে প্রধানমন্ত্রীক স্বাগত জানান। তাঁদের দুজনের মধ্যেও কিছু শুভেচ্ছা বিনিময় হয়। এর পরেই রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ এবং লকেট চ্যাটার্জির সঙ্গে কথা বলতে প্রধানমন্ত্রী এগিয়ে যান। ভাইরাল হওয়া ভিডিও ক্লিপটি প্রথম ১৬ সেকেন্ডের পর থেকেই কাটছাঁট করা হয়েছে।



মোদী-মমতার শুভেচ্ছা বিনিময়ের দৃশ্যের স্ক্রিন গ্র্যাবগুলি নীচে দেখুন:

Updated On: 2020-05-25T23:51:02+05:30
Claim Review :   ভিডিও দেখায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা করেন নি
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story