কৃষক বিক্ষোভ: ২০১৮ সালে আপ দলের মিছিলকে 'দিল্লি চলো' অভিযান বলা হল

২০১৮ সালের ওই ভিডিওটি একটি আম আদমি দলের মিছিলের যেখানে অংশগ্রহণকারীরা টাকা নিয়ে যোগ দেওয়ার অভিযোগ তোলে।

দু'বছরের পুরনো একটি ভিডিওতে লোকজনকে অভিযোগ করতে শোনা যাচ্ছে যে, হরিয়ানায় আম আদমি পার্টির একটি মিছিলে অংশ নেওয়ার জন্য তাঁদের টাকা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়। সেই ভিডিও সোশাল মিডিয়ায় আবার এই দাবি সমেত ফিরে এসেছে যে, ভিডিওটি বর্তমান কৃষক আন্দোলন চলা কালে তোলা।

ভিডিওটিতে দু'জন ব্যক্তিকে এক দল লোকের সঙ্গে কথা বলতে দেখা যাচ্ছে। ওই লোকগুলি দাবি করছে যে, তারা হরিয়ানার বাহাদুরগড়ের দিন মজুর। তারা আরও দাবি করে যে, দু'টি বাসে তাদের মতো ১২০ জন মজুরকে ওই মিছিলে অংশ নেওয়ার জন্য আনা হয়। তার জন্য সংগঠকরা তাঁদের প্রত্যেককে ৩৫০ টাকা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। কিন্তু এখন সংগঠকরা কথা রাখছেন না।

উত্তর ভারতে কৃষক আন্দোলন জোরদার হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে। ওই আন্দোলনের ভাবমূর্তি নষ্ট করার উদ্দেশ্যে শেয়ার-করা বেশ কিছু মিথ্যে সোশাল মিডিয়া পোস্ট ও টুইট ইতিমধ্যেই বুম খণ্ডন করেছে।

আরও পড়ুন: নাগরিকত্ব আইন-বিরোধী প্রতিবাদের ছবি জুড়ল কৃষকদের "দিল্লি চলো' বলে

খবরে প্রকাশ যে, কৃষক ইউনিয়নগুলির নেতাদের সঙ্গে কৃষি মন্ত্রকের আলোচনা অমীমাংসিত থেকে গেছে। কারণ, কৃষকরা নতুন কৃষি আইন সম্পূর্ণ বাতিল করার দাবি করছেন।

ভাইরাল ভিডিওটির আর্কাইভ সংস্করণ এখানেএখানে দেখা যাবে।


ভিডিওটি ফেসবুকটুইটারে ভাইরাল হয়েছে।

আরও পড়ুন: কৃষক বিক্ষোভ: ২০১৮ সালে মহারাষ্ট্রে আয়োজিত 'লং মার্চের' ছবি ফিরে এল

তথ্য যাচাই

ভিডিওটির কয়েকটি প্রধান ফ্রেম বেছে নিয়ে বুম রিভার্স ইমেজ সার্চ করে। দেখা যায়, ভিডিওটি ২০১৮ সালে ইউটিউবে আপলোড করা হয়।

অক্টোবর ২০১৮-য় আপলোড-করা ওই ভিডিওটির নাম দেওয়া হয় ‍'হি টোর কেজরিওয়ালস ড্রাম' (উনি কেজরিওয়ালের ঢাক ফাটিয়ে দেন)।

ভিডিওটি নীচে দেখা যাবে।

এর পর আমরা কি-ওয়ার্ড দিয়ে সার্চ করি। তার ফলে কিছু সংবাদ প্রতিবেদন সামনে আসে। সেগুলিতে ওই ভিডিওটি থেকে নেওয়া স্ক্রিনশট ব্যবহার করা হয়।

'ইনখবর'-এ প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, ঘটনাটি ২৫ মার্চ, ২০১৮-য় হরিয়ানার হিসারে ঘটে।

ওই রিপোর্টের একটি অংশে বলা হয়, "আম আদমি পার্টির কনভেনার ও দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের একটি জনসভা ছিল হরিয়ানার হিসারে। ওই জনসভার পর, সোশাল মিডিয়ায় কয়েকটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। সেগুলিতে আপ-এর টি-শার্ট ও টুপি-পরা কিছু লোক নিজেদের মজুর বলে পরিচয় দিচ্ছেন। ওই শ্রমিকরা বলেন যে, খাবার, চা-জলখাবার ও প্রত্যেককে ৩৫০ টাকা দেওয়ার লোভ দেখিয়ে সভায় আনা হয়। কিন্তু এখন তাদের টাকা দিতে অস্বীকার করা হচ্ছে।"

(হিন্দিতে লেখা রিপোর্ট: ''हरियाणा के हिसार में रविवार को आम आदमी पार्टी (AAP) के संयोजक और दिल्ली के मुख्यमंत्री अरविंद केजरीवाल ने रैली की थी. रैली के बाद के कथित कुछ वीडियो सोशल मीडिया पर वायरल हो रहे हैं, जिनमें AAP की टी-शर्ट और टोपी पहने लोग खुद को मजदूर बता रहे हैं. मजदूरों का कहना है कि उन्हें खाना, चाय-नाश्ता और 350 रुपये दिहाड़ी देने का लालच देकर रैली में लाया गया लेकिन अब उन्हें पैसे देने में टालमटोल की जा रही है' |'')

২৬ মার্চ, ২০১৮-য়, সংবাদ সংস্থা এএনআই, একই ধরনের একটি ভিডিও টুইট করে। তাতেও অংশগ্রহণকারীদের আপ-এর দেওয়া টি-শার্ট পরে থাকতে দেখা যায়।

২৬ মার্চ, ২০১৮-য়, দ্য টাইমস অফ ইন্ডিয়া-র প্রতিবেদনেও ভাইরাল ভিডিওর ব্যক্তিদেরই দেখা যায়।

মার্চ ২০১৮ সালে ইন্ডিয়া টুডে-ও ওই ঘটনাটি সম্পর্কে খবর করে। তাতে হরিয়ানা রাজ্যের আপ প্রধান নবীন জয়হিন্দ ওই লোকগুলির দাবি অস্বীকার করেন। উনি অভিযোগ করেন যে, বিজেপি তাদের আপ-এর টুপি পরিয়ে ভাইরাল ভিডিওটি তোলায়।

আরও পড়ুন: ২০১৩'র খালিস্তানপন্থী ব্যানারের ছবি কৃষক আন্দোলনের সঙ্গে জুড়ে ভাইরাল

Updated On: 2020-12-11T13:46:52+05:30
Claim Review :   ভিডিওর দাবি আম আদমি দল কৃষক আন্দোলনে টাকা দেয়ে লোক যোগান দিচ্ছে
Claimed By :  Social Media Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story