'সুশান্তের জন্য বিচার' লেখা নাইজেরিয়ার প্ল্যাকার্ডের ছবিটি ভুয়ো

বুম দেখে আসল ছবিতে নাইজেরিয়রা প্ল্যাকার্ড হাতে বিতর্কিত সার্স পুলিশ বাহিনীর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাচ্ছেন।

একটি ছবিতে দেখা হচ্ছে নাইজেরিয়রা, 'সুশান্তের জন্য বিচার চাই' লেখা প্ল্যাকার্ড হাতে দাঁড়িয়ে আছেন। কিন্তু ছবিটি সম্পাদনা-করা এবং ভুয়ো। আসল ছবিতে নাইজেরিয়দের সে দেশের কুখ্যাত সারস (স্পেশাল অ্যান্টি-রবারি স্কোয়াড বা ডাকাতি দমন স্কোয়াড)-এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে দেখা যাচ্ছে। ওই স্কোয়াড সে দেশের পুলিশ বাহিনীর একটি শাখা।

১৪ জুন ২০২০ তে, ৩৪ বছর বয়সী অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতকে তাঁর মুম্বাইয়ের ফ্ল্যাটে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়। রাজপুতের আকস্মিক মৃত্যুকে মুম্বাই পুলিশ আত্মহত্যা বলে ঘোষণা করেলেও, ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে নানা ষড়যন্ত্রের তত্ত্ব মাথা চাড়া দেয়। রাজপুতের মৃত্যু আত্মহত্যা না হত্যা, এমনই প্রশ্ন তোলা হতে থাকে। তার ফলে, সোশাল মিডিয়ায় ভুরিভুরি মিথ্যে খবর ছড়াতে থাকে অভিনেতার মৃত্যু সম্পর্কে। ভারতের সেন্ট্রাল ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশন বা সিবিআই এখন ঘটনাটির তদন্ত করছে।

জোড়াতালি দেওয়া ছবিটিতে তিনজনকে দেখা যাচ্ছে – এক মহিলা ও দু'জন পুরুষ। তাঁদের সামনে রয়েছে কয়েকটি প্ল্যাকার্ড। সেগুলিতে লেখা, 'সুশান্তর জন্য বিচার চাই, স্বজনপোষণ নিপাত যাক', 'সুশান্তর জন্য বিচার চাই', 'আমরা বিচার চাই, আরআইপি'। তাঁদের পেছনে একটা ভ্যান দাঁড়িয়ে আছে। তাতে স্পষ্ট লেখা 'নাইজেরিয়া পুলিশ'।

ভুয়ো ছবিটি টুইটার ও ফেসবুকে শেয়ার করা হচ্ছে, বিশেষ করে সুশান্ত সিং রাজপুতের জন্য বিচার চেয়ে যে সব গ্রুপ তৈরি হয়েছে, সেগুলির মধ্যে।

আরও পড়ুন: না, ভারত ও ভারতীয়দের সম্পর্কে এই উক্তি করেননি বিল গেটস

তথ্য যাচাই

ছবিটির রিভার্স ইমেজ সার্চ করলে দেখা যায়, সেটি বদলান হয়েছে। গুগুল রিভার্স ইমেজ সার্চের ফলাফল দেখিয়ে দেয় যে, সিএনএন-এর প্রতিবেদনে ছবিটি ব্যবহার করা হয়। নাইজেরিয়ার বিশেষ পুলিশ বাহিনী সার্স-এর অত্যাচারের বিরুদ্ধে সে দেশের নাগরিকদের প্রতিবাদের কথা লেখা হয় ওই প্রতিবেদনে।

গত ১৫ দিনে, 'এন্ড সার্স' (সার্স শেষ কর) প্রচার জোরদার হয় সে দেশে। ওই পুলিশ বাহিনীর লাগামছাড়া মানবাধিকার লঙ্ঘনের বিরুদ্ধে পথে নামেন নাইজেরিয়ার নাগরিকরা। সেটির বিরুদ্ধে বাড়ছে হেনস্তা, নির্যাতন, তোলাবাজি ও হত্যার অভিযোগ। অনেক দিন ধরেই সার্স-এর কার্যকলাপের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাচ্ছিলেন নাইজেরিয়বাসী। কিন্তু অক্টোবর মাসে বিক্ষোভের নতুন জোয়ার দেখা দেয় তরুনদের মধ্যে।


ছবিটি ছোট আকারে সিএনএন-এর একটি রিপোর্টের সঙ্গে প্রকাশ করা হয়। সেটির শিরোনামে বলা হয়, 'নির্যাতনের দায়েঅভিযুক্ত বিতর্কিত পুলিশ বাহিনী ভেঙ্গেদিল নাইজেরিয়া।'

আসল ছবিতে সার্স-এর বিরুদ্ধে স্লোগান-লেখা প্ল্যাকার্ড দেখা যায়। তাতে লেখা, 'সার্স হল অনুমোদিত অপরাধী', 'পুলিশে সংস্কার করো, সার্স ভাঙ্গো' ও 'দোষী প্রমাণিত না হওয়া পর্যন্ত একজন অভিযুক্ত ব্যক্তি মর্যাদার অধিকারী'।

এএফপি-র জন্য প্লাস উটোমি একপেই ও স্টক ফটো সরবরাহকারী সংস্থা গেট্টি ইমেজেস-এর জলচিহ্ন রয়েছে ছবিটিতে।


কি-ওয়ার্ড 'নাইজেরিয়া', 'সার্স' ও 'প্রোটেস্ট' দিয়ে সার্চ করলে, ছবিটি বেরিয়ে আসে। গেট্টি ইমেজেস-এর ওয়েবসাইটে আসল ছবিটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

ছবিটির সঙ্গে দেওয়া ক্যাপশনে বলা হয়, "৯ অক্টোবর ২০২০ তে, গভর্নমেন্ট হাউসে যাওয়ার পথে বিক্ষোভকারীরা ইকেজায় একটি পুলিশের গাড়ির পাশে বসে প্রতিবাদ কর্মসূচি চালিয়ে যান। তাঁরা বিতর্কিত পুলিশ বাহিনী ভেঙ্গে দেওয়ার দাবি করছেন। নানা অসাধু কাজের অভিযোগ উঠতে থাকায়, নাইজেরিয়ার পুলিশ প্রধান, বিতর্কিত ডাকাত দমন শাখা ও অন্যান্য স্পেশাল ইউনিটগুলির দ্বারা রাস্তা বন্ধ করে সার্চ করাকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করেন। পুলিশের ইন্সপেক্টর জেনারেল মোহম্মদ আদানু বলেন, ফেডারেল স্পেশাল অ্যান্টি-রবারি স্কোয়াড ও অন্যান্য বিশেষ স্কোয়াডগুলিকে সার্চ অভিযান এখনই বন্ধ করতে হবে। আদামু বলেন, এই বিশেষ স্কোয়াডগুলির 'কিছু সদস্য' তাঁদের পদের অপব্যবহার করে 'বেআইনি' কাজ করেছেন বলে জানা গেছে। তাই এই পদক্ষেপ নেওয়া হল।"


১১ অক্টোবর ২০২০ তে নাইজেরিয়া পুলিশ সার্স বাহিনী ভেঙ্গে দেওয়ার কথা ঘোষণা করে। সেই সঙ্গে বলা হয়, ওই বাহিনীর অফিসারদের পুলিশের অন্যান্য শাখায় পুনর্নিয়োগ করা হবে।

আরও পড়ুন: না, প্লাস্টিকে ভরা মদের বোতোলগুলির সঙ্গে বিহার ভোটের সম্পর্ক নেই

Updated On: 2020-10-27T17:21:14+05:30
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.