বাংলাদেশের একটি প্রতিবাদ-বিক্ষোভকে কলকাতার বলা হল

বুম দেখে বিক্ষোভটি ২০১৭ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর ঢাকায় সংগঠিত করেছিল একটি অতি-দক্ষিণপন্থী রাজনৈতিক দল।

মায়ানমারে রোহিঙ্গাদের ওপর নির্যাতনের প্রতিবাদে বাংলাদেশে আয়োজিত একটি বিক্ষোভ মিছিলের ভিডিও সোশাল মিডিয়ায় জিইয়ে তুলে বলা হচ্ছে, এটি নাকি পশ্চিমবঙ্গের ঘটনা। ভিডিওটি ক্লিপটিতে একটি ইসলামি বিপ্লবের গানও জুড়ে দেওয়া হয়েছে।

১ মিনিট ৪২ সেকেন্ডের ফুটেজটিতে দেখা যাচ্ছে, বেশ কিছু বিক্ষোভকারী ঢাকার মায়ানমার দূতাবাসের দিকে হেঁটে যাচ্ছে, যেটি কড়া পুলিশি পাহারায়। ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ নামে একটি দক্ষিণপন্থী রাজনৈতিক দল এই বিক্ষোভ মিছিলটির আয়োজন করে।
বর্তমানে হোয়াটসঅ্যাপে এই দৃশ্যটি ঘুরছে, যার ক্যাপশন হলো: "এই হচ্ছে বাংলার অবস্থা। মুসলমানরা বলছে, তারা সব কিছুর দখল নেবে l ধর্মনিরপেক্ষতার পরিণাম এই সব!"
বুম তার হেল্পলাইন নম্বরে এই ভিডিওটির সত্যতা যাচাইয়ের অনুরোধ পেয়েছে।
এই ভিডিওটি টুইট করে কলকাতার ঘটনা বলে দাবি করেছেন পাকিস্তান বংশোদ্ভত কানাডা নিবাসী টুইটার প্রভাবক তারেক ফাতাহ। টুইটটি আর্কাইভ করা আছে এখানে
এই ভিডিওটাই বাংলাদেশের ফেসবুক ব্যবহারকারীরা জিইয়ে তুলেছে ইসলামই সে দেশের সরকারি রাষ্ট্রধর্ম এটা ঘোষণা করতে। এ ধরনের একটি ফেসবুক পোস্টের ক্যাপশন হল: "রাষ্ট্র ধর্ম ইসলাম আছে! ইসলামী থাকবে ইনশাআল্লাহ। নাস্তিকদের মনের আশা কোনদিন পূরণ হবে না। রাষ্ট্র ধর্ম ইসলাম ভালো না লাগলে! বাংলা ছেড়ে চলে যাও। রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম ছিল, আছে, থাকবে ইনশাআল্লাহ l"
ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন।
ফেসবুকে ভাইরাল
তথ্য যাচাই
বুম এই ভিডিওটির খোঁজ চালিয়ে দেখেছে, এটি ২০১৭ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর ইউটিউবে আপলোড করেছিল স্পাইশ ইনফো টিউব নামে একটি চ্যানেল। তার ক্যাপশন ছিল— 'বাংলাদেশের ইসলামি আন্দোলন মায়ানমার দূতাবাস ঘিরে ফেলেছে।'

সংবাদে প্রকাশ, ১৩ সেপ্টেম্বর সকালে বাংলাদেশের ইসলামি আন্দোলন নামে একটি দল এই বিক্ষোভ মিছিল বের করে। বিক্ষোভকারীরা মায়ানমারের আরাকান এলাকায় রোহিঙ্গাদের উপর ব্যাপক হত্যাকাণ্ড আর নিপীড়নের প্রতিবাদ জানাতে পথে নেমেছিল। সমবেত জনতার উদ্দেশে নেতারা বলেন, আগামী দিনে এর থেকেও বড় আরও দুটি বিক্ষোভ সমাবেশ আয়োজিত হবে।
পুলিশ ঢাকা শহরের শান্তিনগর মোড়ের কাছেই মিছিল থামিয়ে দেয়, সেখানেই নেতারা তাঁদের বক্তৃতা দেন তারপর। এ বিষয়ে বাংলানিউজ-২৪-এর রিপোর্টটি পড়ুন। ফিনান্সিয়াল টাইমস রিপোর্ট করেছিল, সারা দেশ থেকে ২০ হাজারেরও বেশি মানুষ এই সমাবেশে যোগ দিয়েছিল।
ভাইরাল হওয়া ভিডিওটিতে কলরব শিল্পগোষ্ঠীর গাওয়া ইসলামি বিপ্লবের একটি গানও জুড়ে দেওয়া হয়, যেটি শুনতে পারেন এখানে
গুগল ম্যাপ-এর সাহায্যে আমরা ঠিক ঢাকা শহরের কোন জায়গায় বিক্ষোভ-সমাবেশটি অনুষ্ঠিত হয়েছিল, সেটাও বের করতে পেরেছি। ইসলামি ব্যাংক সেন্ট্রাল হসপিটাল হোর্ডিং লেখা একটি বাড়ি আমরা খুঁজে পেয়েছি, যেটি ঢাকার কাজি নজরুল ইসলাম রোডের উপর অবস্থিত।
গুগল ম্যাপ
অনুযায়ী জায়গাটি এখানে
ইউটিউবে বুম ওই একই দিনে আপলোড হওয়া বিক্ষোভটির আর একটি ভিডিও খুঁজে পেয়েছে। বিক্ষোভের খবর জাতীয় চ্যানেল আই নিউজ-এ দেখানো হয়েছিল।
অতিরিক্ত প্রতিবেদন: মাজেদ মহম্মদ, বুম বাংলাদেশ টিম।

Updated On: 2020-08-28T20:02:30+05:30
Claim Review :   ভিডিও দেখায় মুসলমানরা কলকাতায় বিক্ষোভ মিছিল করছে
Claimed By :  Tarek Fatah & WhatsApp Users
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story