বিভ্রান্তিকর দাবিতে ছড়াল রাজস্থানে ধর্মীয় হিংসার শিকার ব্যক্তির ছবি

বুম দেখে বিভিন্ন সম্পর্কহীন ঘটনার ছবি এক সঙ্গে জুড়ে বিভ্রান্তি সহ রাজস্থানে ধর্মীয় হিংসার শিকার ওই ব্যক্তির ছবি ছড়াল।

রাজস্থানের করৌলিতে হিংসায় (Violence) লুটপাট হওয়া দোকানের সামনে সকরুণ মুখে দাঁড়ানো এক ব্যক্তি, ২০২০ সালের দিল্লি হিংসায় (stone pelting) পাথর ছোড়া একদল যুবক ও হিংসার অভিযোগে মধ্যপ্রদশের খারগৌণে (Khargone) বুলডোজারে (bulldozer) দোকানপাট ভেঙে দেওয়ার পরস্পর সম্পর্কহীন (unrelated images) ছবির একটি কোলাজ বিভ্রান্তিকর দাবি (misleading claims) সহ সোশাল মিডিয়ায় ছড়নো হচ্ছে।

টিভি বিতর্কে নূপুর শার্মার পয়গম্বর মহম্মদ সম্পর্কে বিতর্কিত মন্তব্যের প্রেক্ষিতে প্রতিবাদ বিক্ষোভ ও হিংসায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগে উত্তরপ্রদেশের প্রয়াগরাজে গ্রেফতার করা হয় রাজনীতিক ও ব্যবসায়ী মহম্মদ জাভেদকে। ১২ জুন ২০২২ বেআইনি নির্মানের নোটিশ ধরিয়ে জেলাশাসক ও এসপির উপস্থিতিতে বুলডোজার দিয়ে বাড়ি ভাঙে প্রয়াগরাজ উন্নয়ণ কর্তৃপক্ষখবরে প্রকাশ, বাড়ির দালিল মহম্মদ জাভেদের স্ত্রীর নামে থাকলেও তাঁর নামে নোটিশ না দিয়ে এই বাড়ি ভাঙার কাজ করে প্রশাসন। ভাইরাল ছবির কোলাজ এই প্রেক্ষিতে ছড়ানো হচ্ছে। ভাইরাল ছবিটি এই প্রেক্ষিতে ছড়ানো হচ্ছে।

ভাইরাল ছবিটি চারটি ছবির কোলাজ, উপরের দুটি ছবির একটি পোড়া দোকানের সামনে হাস্যমুখে দাঁড়ানো এক ব্যক্তি, পাশে ঢিল ছোঁড়ার দৃশ্য। নিচের ছবিতে ওই ব্যক্তির সকরুণ চাহনি, পাশে বুলডোজার দিয়ে বাড়ি ভাঙার দৃশ্য।

ছবিটি পোস্ট করে ক্যাপশন লেখা হয়েছে, "প্রত্যেক দা@ ঙ্গাবা^জের একটাই ওষুধ বুল ডোজার"

ফেসবুক পোস্টট দেখুন এখানে


তথ্য যাচাই

বুম রিভার্স সার্চ করে দেখে বিভিন্ন ঘটনার সম্পর্কহীন ছবি এক সঙ্গে জুড়ে বিভ্রান্তিকর দাবিতে ছড়ানো হচ্ছে।

রাজস্থানের ব্যক্তি

সাংবাদিক মীর ফয়জল ১২ এপ্রিল ২০২২ এই ব্যক্তির ছবি ও প্রেসকে দেওয়া বাইটের ভিডিও পোস্ট করে। টুইটে লেখা ক্যাপশন অনুযায়ী, রাজস্থানের করৌলিতে বুড়া বাতসা গলিতে নিজামউদ্দিন নামে ওই ব্যক্তির শুকনো ফল ও মশলার দোকানে লুটপাট চালায় দুস্কৃতকারীরা।

একই ব্যক্তির ছবি প্রকাশিত হয়েছে, ১৬ এপ্রিল ২০২২ নিক্কিতে প্রকাশিত প্রতিবেদনে।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসে প্রকাশিতপ্রতিবেদেন অনুযায়ী, রাজস্থানের করৌলিতে সংখ্যালঘু প্রধান এলাকায় ধর্মীয় শোভাযাত্রা ঘিরে হিংসার ঘটনা ঘটে। দোকানপাট লুটপাট, ভাঙচুর ও আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়।

২০২০ সালের দিল্লিতে হিংসার ঘটনা

বুম পাথর ছোঁড়ার ছবিটি রিভার্স সার্চ করে ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ প্রকাশিত ফার্স্টপোস্টের একটি প্রতিবেদনে দেখতে পায়। অন্য ভঙ্গিমায় থাকা একই ব্যক্তিদের দেখা যাবে ওই দিন প্রাকশিত বিজনেস স্টান্ডার্ডের প্রতিবেদনে। ছবির ক্যাপশন অনুযায়ী, "২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০, সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের বিরোধী ও সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের সময় উত্তর-পূর্ব দিল্লির জাফরাবাদে বিক্ষোভকারীদের ইঁটবৃষ্টির দৃশ্য।" উভয় গণমাধ্যমই ছবির সূত্র হিসেবে সংবাদ সংস্থা পিটিআইয়ের নাম উল্লেখ করে।


মধ্যপ্রদেশে বাড়িভাঙা

বুলডোজার দিয়ে বাড়িঘর ভাঙার ছবিটিটি ১১ এপ্রিল ২০২২ ও ১২ এপ্রিল ২০২২, নিউজ ৯ এবং চেনাব টাইমসে প্রকাশিত হয়েছিল।


স্ক্রোলে ১১ এপ্রিল ২০২২ প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, ধর্মীয় শোভাযাত্রায় প্ররোচনামূলক সঙ্গীত বাজানো অভিযোগে পাথর ছোঁড়ার অভিযোগ ঘিরো মধ্যপ্রদেশের খারগৌণে হিংসার ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে আহত হন পুলিশ আধিকারিকও। পরে মধ্যপ্রদেশ প্রশাসন হিংসায় অংশ নেওয়ার অভিযোগে বেআইনি নির্মাণ বুলডোজার দিয়ে ভেঙে দেয়।

বুম আগেও একই ব্যক্তির ছবি বিভ্রান্তিকর দাবি সহ সম্পর্কহীন ছবির সঙ্গে ভাইরাল হলে এবছরের এপ্রিল মাসে তার তথ্য-যাচাই করেছিল।

আরও পড়ুন: 'Amrela' বানান বলা ছাত্রীর আত্মহনন? ভুয়ো দাবিতে ছড়াল ভিন্ন ছবি

Claim :   পাথর ছোড়া ব্যক্তির বুলডোজারে বাড়ি ভাঙা হল
Claimed By :  Facebook Post
Fact Check :  Misleading
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.